Skip to content

৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ | শুক্রবার | ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

একজন অনন্যা: নাজিয়া আন্দালিব প্রিমা

নাজিয়া আন্দালিব প্রিমা, ২০১৪ সালে অনন্যা শীর্ষ দশের নিজের অসামান্য প্রতিভার জোরে অসাধারণ ভিডিও আর্টের জন্য পুরস্কৃত হন। এছাড়াও দেশ বিদেশে নানান পুরস্কার জয় করে নিয়েছেন এই অনন্য নারী। নিজের পরিচয় গড়েছেন একজন শিল্পী হিসেবে, একজন উদ্যোক্তা হিসেবে এবং একজন কালচারাল ইনফ্লুয়েনশাল। 

গত ২৯ ডিসেম্বর রোজ মঙ্গলবার অনন্যার নিয়মিত আয়োজন 'অনন্যা স্পেশাল – বৈঠকখানা'য় উপস্থিত ছিলেন নাজিয়া আন্দালিব। তিনি তার অনুষ্ঠানে তার নানান অভিজ্ঞতা ও অনুভূতি শেয়ার করেন সকলের সাথে। লকডাউনের সময়ে নিজেকে নতুন করে গড়ে তুলছেন বলে জানান নাজিয়া আন্দালিব। তিনি বলেন, দুর্যোগপূর্ণ সময় হলেও নিজেকে ভেঙে আবার গড়ে তোলার জন্য, সৃজনশীল কাজের জন্য য গভীর সাধনা করতে হয় সেই সময়টা এর আগে এভাবে কখনো পাওয়া হয়নি। আর এই সময়টাকে কাজে লাগিয়ে তিনি ১৮২ টা কাজ করছেন, সেই সাথে করেছেন প্রচুর রিসার্চ ওয়ার্ক। 

জীবন জীবিকা আর সংগ্রাম , এই বিষয় গুলো মিলেই আমাদের বেঁচে থাকা। সেই আঙ্গিকে করোনাকালীন সময়ে সারা বিশ্বের সাথে শিল্প জগতেরও যে ক্ষতি বা সীমাবদ্ধতা তৈরি হয়েছিল সে বিষয়টিও তুলে ধরেন নাজিয়া আন্দালিব। 

শিল্পের সাথে জীবনের যোগসূত্র কতটা সে বিষয়টি তুলে ধরেন তিনি। তিনি জীবনের পরিপূর্ণতার জন্য সুর, তাল, লয়ের সংমিশ্রণের গুরুত্ব সম্পর্কে বলেন। 

আর্ট বা শিল্পের নানান প্রয়োগ ও প্রায়োগিক দিক নিয়ে তিনি কথা বলেন। আকুতি জানান শিল্পকে সারা পৃথিবীর কাছে মূল্যবান হিসেবে পৌঁছে দিতে, বাঁচিয়ে রাখতে। এমনকি নিজের দেশের শিল্পকর্মের মাধ্যমে এদেশকে বিশ্বের কাছে তুলে ধরতে হবে, নিজেদের অহংকারকে বাঁচিয়ে রাখতে হবে, নিজের দেশের পরিচয়কে আরো গৌরবোজ্জ্বল করতে হবে বলেও আকুতি জানান।