Skip to content

২২শে মে, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | বুধবার | ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

স্বপ্নের নাম এক্সিলেন্ট কালেকশন

যশোর স্টিচের দেশীয় কাপড় দিয়ে ২০০৮ সালে যাত্রা শুরু করেন আজকের সফল নারী উদ্যোক্তা এক্সিলেন্ট কালেকশন এর কর্ণধার সুবর্না রসুল। শুরুর দিকে পরিচিতদের কাছে দেশীয় আর ইন্ডিয়ান প্রোডাক্ট দিয়ে শুরু করলেও,বর্তমানে পুরোদমে দেশীয় বুটিকস আইটেম নিয়ে কাজ করছেন তিনি। বিয়ের পর স্বামীর সাহচর্যে এবং সহযোগিতায় ব্যবসা শুরু করেন আর তারই ধারাবাহিকতায় ২০১৫ সালে অনলাইন প্লাটফর্মে নিয়ে আসেন তার স্বপ্নের এক্সিলেন্ট কালেকশনকে।

 

ব্যবসা এর পাশাপাশি বিয়ের পরেও তিনি ঢাকার স্বনামধন্য বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইংরেজিতে মাস্টার্স এবং পরবর্তীতে আইন বিভাগেও পড়াশুনা করেছেন। পরিবার থেকে যথেষ্ট সহযোগিতা পেয়েছেন সবসময়। আর তাইতো অনলাইন প্লাটফর্মে ব্যবসায়ের নানা প্রতিকূলতাকে খুব সহজেই পাশ কাটিয়ে এগিয়ে চলতে পেরেছেন বলে তিনি মনে করেন। সমাজের সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের পাশে থেকে সবসময়ই তিনি আনন্দ খুঁজে পান। এক্সিলেন্ট কালেকশন এর বার্ষিক আয়ের ২৫% তিনি সুবিধাবঞ্চিত মানুষ,ঝড়ে পড়া শিক্ষার্থী, এতিমখানায় দিয়ে সাহায্য করার চেষ্টা করেন। অনলাইন প্লাটফর্মেই সবসময় ব্যবসা করতে চান সুবর্না রসুল।

 

৫ বছর পর নিজের এক্সিলেন্ট কালেকশনকে কোথায় দেখতে চান জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন," আমি বড় কোনো শোরুম কিংবা দোকান দিতে চাই না,আমি অনলাইনেই সার্ভিস দিতে চাই। বরং, আমার পেইজের দ্বারা আরো অনেক পরিবারের কর্মসংস্থান বাড়ুক,জীবন মানের উন্নয়ন হোক এটাই চাওয়া"। করোনাকালীন মহামারীতে লকডাউনের প্রভাব তার ব্যবসায়ে পড়লেও দ্রুত ডেলিভারী সুবিধা,রিটার্ন ও এক্সচেঞ্জের যাবতীয় ঝামেলাবিহীন সুবিধা পেয়ে আসছেন প্রভাতী কুরিয়ার লিমিটেডের ডেলিভারী সার্ভিসের মাধ্যমে। অনলাইনে ব্যবসা করার জন্য ডেলিভারী সার্ভিস ভালো হওয়া অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বলে তিনি মনে করেন।

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ