Skip to content

২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ | সোমবার | ১১ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ইরানের ‘জোম্বি অ্যাঞ্জেলিনা জোলি’ খ্যাত সেই নারীর ১০ বছরের জেল!

হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলির মত চেহারার আদল বানাতে গিয়ে ভাইরাল হয়েছিল ইরানের এক নারী 'সাহার তাবার'। কিন্তু পেয়েছিলো 'জোম্বি' খেতাব। 

২০১৭ সালের ডিসেম্বরে ইন্সটাগ্রামে সাহারের ছবি নিয়ে হঠাৎ করেই হইচই পড়ে যায়।রাতারাতি বনে যান ইন্সটাগ্রাম তারকা। বর্তমানে আবারও তাকে নিয়ে হইচই বিশ্ব মিডিয়ায়।  কিন্তু বর্তমান কারণ, সম্প্রতি ১০ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে এ নারীকে। ইরানের একটি আদালতে এই রায় দেওয়া হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন সাহার তাবারকের আইনজীবী সাইদ দেহঘান।

সাইদ দেহঘান জানান, তিনি সাহার তাবারের ১০ বছরের কারাদণ্ডের রায় শুনেছে তবে আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে এখনো কিছু জানানো হয়নি। হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলির মত চেহারার আদল বানাতে গিয়ে ‘জোম্বি’ খেতাব পাওয়া ইরানের এই ইন্সটাগ্রাম তারকাকে ধর্ম অবমাননার অভিযোগে ২০১৯ সালে গ্রেপ্তার করা হয়।  এছাড়াও তার বিরুদ্ধে হিংসায় উস্কানি, যুবকদের দুর্নীতিতে উৎসাহ ও অকাজ করে আয়ের ধারা দেওয়া হয়েছে। 

নিজের চেহারায় অ্যাঞ্জেলিনা জোলির মত গড়ন আনতে রীতিমতো ভয়ংকর করে তুলেন নিজের চেহারা। গুঞ্জন রয়েছে, জোলির মত হতে তিনি ৫০ বার প্লাস্টিক সার্জারি করিয়েছেন। তবে তা করতে গিয়ে মুখের আকৃতি বিগড়ে গিয়েছিল বলে ধরে নিয়েছিলেন তাবারের ভক্তরা। 
 তাই তার ভয়ংকর লুকের জন্য অ্যাঞ্জেলিনা জোলি নয় বরং পেয়েছেন জোম্বি আখ্যা।

২০১৯ সালে সাহার তাবার নিজের আসল মুখের ছবি দেন। দাবি করেন, জোলির জোম্বি লুকের ছবি দেন নেহাত রসিকতার জন্য। মেকআপ ও ফটোশপ করে জোম্বি সাজেন। তিনি বলেন,'আমি স্বপ্নেও ভাবতে পারি না অ্যঞ্জোলিনা জোলির মতো দেখতে হব।' তবে ঠোঁট ও নাকে সার্জারির কথা স্বীকার করেন তিনি।