Skip to content

২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ | রবিবার | ১০ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কখনো কখনো নীরবতাই উত্তম

কথায় আছে, কখনো কখনো নীরবতাই সেরা উত্তর। তবে সব সময় মৌনতা নয়, কোনো কোনো ক্ষেত্রে কথা বলার চেয়ে চুপ থাকার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

কমিউনিকেশন বিশেষজ্ঞ জেন ফ্লোরেস্কা জানিয়েছেন, নীরবতাও এক ধরনের যোগাযোগ। জীবনের কয়েকটি ক্ষেত্রে চুপ থাকাই উত্তম। ফলে বিশেষ কিছু ঘটতে পারে, যা আমাদের ও আমাদের পরিপার্শ্বের পক্ষে লাভজনক।

* সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে নীরবতা পালন করুন। আত্মীয়ের কাঁধে হাত রেখে চুপচাপ বসে থাকুন। অবান্তর সান্ত্বনা দেওয়ার চেয়ে নীরবতাই এ ক্ষেত্রে বাঙ্ময়।

* নিজেকে যখন অস্থির ও বিভ্রান্ত বলে মনে হবে, তখন চুপ করে থাকুন। এই সময়ে কথা বলার ক্ষেত্রে নিজের নিয়ন্ত্রণ হারাতে পারেন আপনি। এ ক্ষেত্রে বিড়ম্বনা বাড়তে পারে। জট পাকিয়ে ফেলতে পারেন।

* কোনো আলোচনা যদি মনোগ্রাহী, নতুন ও গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে চুপ থাকুন। মনোযোগ সহকারে শুনুন।

* যে কোনো কাজ করার সময় যতোটা সম্ভব কম কথা বলুন। একে মনোসংযোগ বাড়বে। দিন শেষে ক্লান্তিবোধও কম হবে।

বাজে তর্ক, উটকো ঝগড়া, অন্যের গীবত ইত্যাদির সময়ে মৌনব্রত পালন করুন। আপনি লাভবান হবেন। সঙ্গে পাবেন মানসিক প্রশান্তি।