Skip to content

১০ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | বুধবার | ২৬শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রমজানে ফল খাওয়ার সুবিধা

খাবার হিসেবে জনপ্রিয়তার দিক তেকে সবসময় মুখরোচক খাবারগুলোই এগিয়ে থাকে। রমজানেও নেই ভিন্নতা। সারাদিন রোজা রাখার ইফতারে আমরা বসি বাহারী রকমের ইফতার নিয়ে। যেমন – আলুর চপ, বেগুনি, ছোলা ইত্যাদি বেশ জনপ্রিয়। আর বর্তমান প্রজন্মের তো ফলের প্রতি একটা অনীহা রয়েছেই। তবে রোজায় ফল খাওয়া ঠিক কি কি সুফল বয়ে আনতে পারে তা জানলে হয়তোবা পছন্দের খাদ্যতালিকায় ভরপুর ফল রাখতে পারবেন। তবে চলুন জানা যাক কেন ফল খাবেন?

১. দেহকে সচল ও সবল রাখতে হলে আমাদেরকে প্রত্যেক দিন ফল খেতেই হবে। দেহ সুস্থ-সবল রাখতে যেই সকল পুষ্টি উপাদানের প্রয়োজন তার প্রায় সবই আছে ফলে। বিশেষ করে ফল হলো বিভিন্ন ভিটামিন ও খনিজ উপাদানের আধার।

২. গর্ভবতী ও প্রসূতি মায়েদের স্বাস্থ্য সার্বক্ষনিক রক্ষায় ও কমে যাওয়া স্বাস্থ্য পুনরুদ্ধারে ফল অদ্বিতীয়। তাদের দেহের জন্য যথেষ্ট পরিমাণে ফলেট বা ফলিক এসিড দরকার হয়। যা ফল খেলে খেলে সহজেই পূরণ হতে পারে।

৩. ফলে থাকে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার বা আঁশ যা শরীরে মেদ জমতে বাঁধা দেয়, ফলে যারা ওজন কমানোর চেষ্টা করছেন তাদের জন্যও ফল উপকারী। এরই সাথে ফাইবার কোলেস্টেরল এর মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতেও সাহায্য করে ফল।

৪. প্রায় সকল ফলেই থাকে পানি, যা আপনার ত্বককে সুস্থ এবং নরম রাখতে সাহায্য করে থাকে।

৫. ফল হজমশক্তি বৃদ্ধিতেও সাহায্য করে যার ফলে আপনি পেটের সমস্যা থেকেও পুরোপুরি মুক্ত থাকতে পারবেন।

৬. প্রতিটি ফলে থাকে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, যা শরীরের খারাপ ব্যাকটেরিয়াগুলোর বিপরীতে কাজ করে থাকে।

৭. এছাড়াও, ত্বকের যত্নেও উপকারী ফল।
প্রায় সকল ফলেই থাকে পানি, যা আপনার ত্বককে সুস্থ এবং নরম রাখতে সাহায্য করে থাকে

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ