Skip to content

২রা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ | রবিবার | ১৭ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বয়স ৪০ পরবর্তী খাদ্যাভ্যাস যেমন হবে

একটি শিশু যেভাবে চলতে পারে একজন বয়স্ক মানুষ সেভাবে চলতে পারে না। শিশুর সঙ্গে বয়স্ক মানুষটির রয়েছে বয়সের ব্যবধান। এই ব্যবধানের কারণে তাদের মধ্যে আসে নানা শারীরিক পরিবর্তন। অর্থাৎ একটা নির্দিষ্ট বয়স পেরিয়ে যাওয়ার পর শরীরে আসে নানারকম পরিবর্তন। ওই সময় শরীরের সঙ্গে মানিয়ে খাদ্যাভ্যাসেরও পরিবর্তন আনা প্রয়োজন। বয়স চল্লিশের পর ডায়াবেটিস, হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপসহ বিভিন্ন ধরনের রোগ শরীরে বাসা বাঁধতে পারে। এসব থেকে নিজেকে রক্ষা করতে খাদ্য তালিকার বদল আনা জরুরি।

চল্লিশ বছরের পর শরীরে রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়। তাই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে খাবারে বিভিন্ন ভেষজ উপাদান ব্যবহার করতে পারেন। তুলসি, আদা, জিরা, ধনিয়া, কালোজিরা, গোলমরিচ, দারুচিনি, লবঙ্গ ইত্যাদি।এগুলো আপনাকে বিভিন্ন রোগ থেকে দূরে রাখতে সাহায্য করবে।

বয়স বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে হাড়ও দুর্বল হতে থাকে। এসময় হাড় শক্ত ও মজবুত রাখতে ক্যালসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া ভীষণ প্রয়োজন।তাই দুধ, দই, সিরিয়াল, মাছ খান নিয়মিত খেতে পারেন। প্রোটিন ও অ্যান্টি-অক্সিডেন্টের জন্য মুরগির মাংস, ডাল, সয়া মিল্ক, লো ফ্যাট পনির খেতে পারেন। এগুলো আপনার হাড়কে শক্তিশালী করে তুলবে।

বয়স চল্লিশ পেরিয়ে গেলে চেষ্টা করুন বেশি করে ফাইবারজাতীয় খাবার খেতে। কারণ ফাইবার জাতীয় খাবার হজমে সহায়ক। এছাড়াও পটাশিয়াম জাতীয় খাবার খেতে পারেন। ঝিঙে, পটল, বাঁধাকপি, লেটুস, ব্রকোলি, ফুলকপির মতো বিভিন্ন সবজি, তরমুজ, শসা, পেয়ারা, আপেল ও নাসপাতির মতো ফল চল্লিশের পর খুব উপকারী।

অনন্যা/এসএএস