Skip to content

২রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিষ্টাব্দ | শুক্রবার | ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

চুলপড়া কমবে ঘরোয়া উপায়ে!

'চুল তার কবেকার অন্ধকার বিদিশার নিশা'- কবির ভাষায় কোনো রমণীর চুলের সৌন্দর্য ব্যাখা করা হয়েছিল এভাবেই।  শুধু কি এই একটি বাক্য, চুলের সৌন্দর্য তুলে ধরতে কত শত বাক্যের আবির্ভাব যে হয়েছে, তা না হয় নাই গুনলাম। 

 

শারীরিক সৌন্দর্যের প্রতীক হিসেবে বরাবরই বিশাল এক ভূমিকা পালন করে চুল।  আবার সেই সৌন্দর্যের পথে বিশাল এক বাধা হয়ে দাঁড়ায় অতিরিক্ত চুলপড়া।  ছেলে-মেয়ে উভয়কেই দেখা যায়, এই চুল পড়ার সমস্যায় ভুগতে। তবে এতে দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হওয়ার কিছু নেই।  সমস্যা যেহেতু রয়েছে, রয়েছে সমাধানও। অনেকেই চুলপড়া রোধ করতে খরচ করছেন বিশাল অর্থ ব্যয়। তাই আজ জেনে নিন, সহজেই চুল পড়ার সমস্যা দূর করার কিছু ঘরোয়া উপায়: 

 

১. চুলের যত্নে খুব উপকারী একটি উপাদান হতে পারে ডিম। ডিমের মধ্যে রয়েছে চুলের প্রয়োজনীয় প্রোটিন, যেমন: বায়োটিন, ভিটামিন এ এবং ভিটামিন ডি।  এটি দ্রুত চুল বৃদ্ধি করতে এবং চুলের রুক্ষতা দূর করে মসৃণ করতে সাহায্য করে।  ডিম চুলের সব রকম পুষ্টির ঘাটতি পূরণ করে থাকে। ডিমকে চুলের খাদ্যও বলা হয়। 

 

একটি ডিমের কুসুম নিয়ে তার মধ্যে দু-তিন ফোঁটা লেবুর রস নিয়ে ভালো করে ফেটিয়ে মিশ্রণটি মাথার স্কাল্প থেকে চুলের ডগা পর্যন্ত ভালো করে লাগিয়ে রাখুন। ২০ মিনিট লাগিয়ে রাখার পর হালকা কোনো শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। চাইলে অলিভ অয়েল কিংবা নারকেল তেলও যোগ করতে পারেন। 

 

এই ফর্মুলাটি সপ্তাহে ২-৩ দিন ব্যবহার করলে ভালো ফলাফল পাবেন। 

 

২. লেবু সাইট্রিক অ্যাসিড, ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ভিটামিন সি সমৃদ্ধ হওয়ায় চুলকে সুস্থ রাখতে, চুলের অকালপক্কতা দূর করতে এবং চুল পড়া রোধ করতে উল্লেখযোগ্য ভূমি পালন করে। কারণ, চুল পড়ার একটি অন্যতম কারণ ভিটামিন সি-এর অভাব। এ-ছাড়া, চুলের খুশকি দূর করতে, মাথার ত্বকের কোনো রকম সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে। 

 

লেবু, হেনা পাউডার এবং ডিমের সাথে কুসুম গরম জল মিশিয়ে মাস্ক বানিয়ে এক ঘন্টার জন্য মাথায় লাগিয়ে রাখতে পারেন। এটি চুলের বৃদ্ধিকে ত্বরান্বিত করবে। 

এ-ছাড়া, একটি লেবু কেটে অর্ধেক করে, ১০ মিনিট ধরে মাথায় ঘষে নিতে পারেন। এতে চুলের তৈলাক্ত ত্বকের  সমস্যা দূর হবে এবং চুলপড়া অনেকাংশেই কমে আসবে। 

 

এই ফর্মুলাটি সপ্তাহে একবার করে ব্যবহার করতে পারেন। 

 

৩. চুলপড়া-সমস্যার ভুক্তভোগীদের জন্য প্রাচীনকাল থেকেই ভরসাযোগ্য একটি উপাদান নিমপাতা। নিমপাতার উপকারিতা জানেন না, এমন মানুষ খুব কমই আছে। নিম  মাথার ত্বক থেকে অতিরিক্ত তেল উৎপাদন বন্ধ করে চুলের গোড়াকে শক্ত করতে সাহায্য করে। 

 

নিমপাতা বেটে নিয়ে তার থেকে চেপে চেপে রস বের করে নেবেন। তারপর সেই রসের সাথে নারকেলতেল  মিশিয়ে তা মাথার ত্বকে এবং পুরো চুলে আধঘন্টার জন্য লাগিয়ে রাখবেন। এ-ছাড়া, নিমপাতার মিশ্রণের সাথে সমান পরিমাণ অলিভ অয়েল, আমন্ড অয়েল কিংবা নারকেলতেল মিশিয়ে গরম করে মাথায় লাগাতে পারেন।  নিমপাতা বেটে তার মধ্যে মধু মিশিয়েও মাথার চুলে লাগাতে পারেন।

 

কিছু দিন ব্যবহারেই আপনি নিমের উপকারিতা বুঝতে পারবেন। 

 

এ-সব পদ্ধতি ছাড়া চুলপড়া রোধে আপনাকে গুরুত্ব দিতে হবে পুষ্টিকর খবারের ওপর। প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রাখুন জিঙ্ক, ভিটামিন সি, ওমেগা-৩ ফ্যাটি এসিড, আয়রন, ভিটামিন ডি, বায়োটিন, ভিটামিন এ ইত্যাদি সমৃদ্ধি খাবার।

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ