Skip to content

১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | শনিবার | ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গতমাসে ধর্ষণের শিকার ১০১ জন!

আমাদের দেশে নারীর নিরাপত্তা দিনের পর দিন মারাত্মক আকার ধারণ করছে। যার প্রমাণ এই অক্টোবর মাসের তথ্য নিয়ে বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের একটি প্রতিবেদন। যেখানে দেখা যায় গতমাসে ধর্ষণের শিকার হয়েছে ১০১ জন।

 

এছাড়াও সারাদেশে ১৬০৩ জন নারী ও কন্যাশিশু নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। ১৬ জন শিশুসহ ১৮ জন অপহরণের শিকার এবং ৪ জন শিশুসহ পাচারের শিকার হয়েছে ২৯ জন। হত্যা করা হয়েছে ৫১ জনকে এবং ২৮ জনের রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। 

ধর্ষণের শিকার হওয়াদের মধ্যে  ৪১ জন শিশু। যাদের তিনজন দলবদ্ধ ধর্ষণের শিকার ও ৪ জন কন্যাশিশুকে ধর্ষণের পর হত্যা করা হয়েছে। ২ জন শিশুসহ ৭ জনকে ধর্ষণ-চেষ্টা করা হয়েছে। 

 

প্রতিবেদনটিতে উঠে আসা তথ্যের মাধ্যমে আরো জানা যায়,  ২ জন শিশুসহ ৭ জনকে ধর্ষণ-চেষ্টা করা হয়েছে। অ্যাসিড-দগ্ধ হয়েছেন ৩ জন। অগ্নিদগ্ধ হয়েছে ২ জন। ৬ জন শিশু উত্ত্যক্তের শিকার হয়েছে। ১৬ জন শিশুসহ ১৮ জন অপহরণের শিকার ও একজন কন্যাশিশুকে অপহরণ-চেষ্টা করা হয়েছে। ৪ জন শিশুসহ পাচারের শিকার হয়েছে ২৯ জন। 

এছাড়াও যৌতুকের কারণে নির্যাতনের শিকার হয়েছে ৬ জন, যার মধ্যে দুজনকে যৌতুকের কারণে হত্যা করা হয়েছে। শারীরিক নির্যাতনের শিকার হয়েছে ৬ জন শিশুসহ মোট ২৩ জন। বিভিন্ন কারণে ১২ জন কন্যাশিশুসহ ৫১ জনকে হত্যা করা হয়েছে। আটজন কন্যাশিশুসহ ১৯ জন আত্মহত্যা করেছে। 

 

২ নভেম্বর (মঙ্গলবার)  বাংলাদেশ মহিলা পরিষদ  এসব  তথ্য জানিয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেন। সংগঠনটি রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশের তথ্য নিয়ে এ প্রতিবেদনটি প্রকাশ করেন।  দেশের ১৪ টি জাতীয় দৈনিক পত্রিকা, অনলাইন ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় প্রকাশিত তথ্যের ভিত্তিতে এই প্রতিবেদন তৈরি করা হয়৷

 

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ