Skip to content

১০ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | বুধবার | ২৬শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিশ্বের সবচেয়ে ছোট্ট শিশু

মনে আছে, পৃথিবীর সবচেয়ে ছোট্ট শিশুর কথা? যে মাত্র ২১২ গ্রাম ওজন নিয়ে পৃথিবীতে এসেছিল। ইয়ু জুয়ান, এখন পর্যন্ত জন্মের সময় শিশুদের ওজন এবং দৈর্ঘ্যের উচ্চতায় সেই সবচেয়ে ছোট।  

 

জন্মের সময় একটি শিশুর স্বাভাবিক ওজন হয় সাধারণত ২.৬ থেকে ৪.৫ কেজি যা গ্রামের হিসেবে ২৬০০ থেকে ৪৫০০ গ্রাম। তবে গড় ওজন দেখা যায় ৩.৪ কেজি বা ৩৪০০ গ্রাম। কিন্তু এর ব্যতিক্রম ২১২ গ্রামের জুয়ান। অর্থাৎ একটি আপেলের সমান ওজন নিয়ে শিশুটির জন্ম হয়েছিল। বিশ্বের সবচেয়ে খুদে শিশুর স্বীকৃতি পেয়েছে সে।

 

জুয়ানের এতো ক্ষুদ্র হওয়ার কারণ হল তার মায়ের গর্ভকালীন জটিলতা। গর্ভে থাকার সময় ‘প্রি-একল্যাম্পসিয়ায়’ ভুগছিলেন জুয়ানের মা ওং মেই লিংয়ের। এই রোগে শরীরের রক্তচাপ ব্যাপকভাবে বেড়ে যায়। ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ঝুঁকিতে থাকে মায়ের নানা অঙ্গপ্রত্যঙ্গ। গর্ভধারণের সময় এমন রক্তচাপ মায়ের পাশাপাশি শিশুর জন্যও মারাত্মক হতে পারে। ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ঝুঁকিতে থাকে মা ও গর্ভের শিশুর নানা অঙ্গপ্রত্যঙ্গ। অনেক সময় এ রোগে মারা যেতে পারে মা ও শিশু উভয়ই। এছাড়াও আরেকটি কারণ ছিল। সাধারণত মায়ের গর্ভে ৪০ সপ্তাহ থাকার পর একটি শিশুর জন্ম হয়। তবে জুয়ানের ক্ষেত্রে তা ঘটেনি। জুয়ানের জন্ম হয় মাত্র ২৫ সপ্তাহে।

 

এত ছোট হওয়ায় তাকে নিয়ে নানা আশঙ্কাও ছিল বিশেষজ্ঞদের। অপরিণত অবস্থায় জন্ম নেওয়া মেয়ে শিশুটি বেঁচে থাকবে কিনা, তা নিয়ে ছিল নানা শঙ্কা। তবে জন্মের সময় তার শারীরিক অবস্থা আশঙ্কাজনক হলেও এখন বেশ ভালোই আছে জুয়ান। নিবিড় পরিচর্যায় টানা ১৩ মাস তাকে চিকিৎসা দেওয়া হয় হাসপাতালে। অবশেষে সুস্থ হয়েছে জুয়ান। কিছুদিন আগেই সে প্রথম বাড়ি ফিরল। এখন তার ওজন ৬ কেজি ৩০০ গ্রাম।

 

এই ১৩ মাস সময়ে হাসপাতালে জুয়ানের চিকিৎসায় অনেক অর্থ খরচ হয়। পুরো চিকিৎসায় তাদের মোট খরচ মেটানো হয়েছে অর্থ সংগ্রহ বিষয়ক প্রচারণার মাধ্যমে। এভাবে তারা সংগ্রহ করেছেন ৩ লাখ ৬৬ হাজার ৮৮৪ সিঙ্গাপুরি ডলার যা প্রায় ২ লাখ ৭১ মার্কিন ডলার।

 

তবে এখনো পুরোপুরি সুস্থ হয়ে ওঠেনি। ফুসফুসে জটিলতা রয়েছে তার। শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যার কারণে তাকে বাড়ি থেকে চিকিৎসা নিতে হবে। তবে সময়ের সঙ্গে এটিও সেরে উঠবে বলে আশা করছেন চিকিৎসকরা।

 

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব আইওয়ার তথ্য অনুযায়ী, এর আগে ২০১৮ সালে যুক্তরাষ্ট্রে ২৪৫ গ্রাম ওজনের একটি কন্যা শিশু জন্ম নিয়েছিল। জুয়ানের আগে সেই সবচেয়ে খুদে শিশু হিসেবে স্বীকৃত ছিল।

 

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ