Skip to content

১লা জুন, ২০২৩ খ্রিষ্টাব্দ | বৃহস্পতিবার | ১৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

বালির প্রাসাদে এবার নতুন রেকর্ড!

ইটের দেয়াল ঘেরা প্রাসাদের কথা শুনেছিলাম গল্পে, তবে কি সোনালি বালির প্রাসাদ নুয়ে যাবে অল্পে?

প্রাসাদ নিয়ে নানান গল্প কিংবা কাহিনী আমরা অনেকেই শুনেছি। ইট, বালি আর সিমেন্টে দাড়িয়ে থাকা বিশাল শৈল্পিক শিল্প। কিন্তু শুধু মাত্র বালিতে তৈরি?এ যেন বিস্ময়। তবে এবার বালির প্রাসাদে জার্মানির পরেই ডেনমার্ক রেকর্ড ভাঙল গিনিসের।

৬৭ ফুট উঁচু বালির প্রাসাদ বানিয়ে গিনেস রেকর্ড ভেঙেছে ডেনমার্ক। ৫ হাজার টন বালি দিয়ে তৈরি এই প্রাসাদকে বলা হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে উঁচু বালির প্রাসাদ। এর আগে বিশ্বের সবচেয়ে উঁচু বালির প্রাসাদ তৈরির খেতাব ছিল জার্মানির। ৫৮ ফুট উঁচু ওই প্রাসাদটি বিশ্বের সবচেয়ে উঁচু প্রাসাদ হিসেবে ঠাঁই করে নিয়েছিল গিনেস বুকে। ডেনমার্কের এই প্রাসাদ ওই প্রাসাদের চেয়েও তিনগুণ বড়।

ডেনমার্কের এই বালির প্রাসাদ তৈরি করা হয়েছে মিসরের পিরামিডের আদলে। প্রাসাদের উপরে করোনার মডেল মুকুট হিসেবে পরানো হয়েছে। বিশ্বজুড়ে চলমান করোনার রাজস্ব বোঝাতে এই মুকুট পরানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন শিল্পীরা। প্রাসাদটি তৈরি করেছেন ওলন্দাজ শিল্পী উইলফ্রেড স্টিগার। এই কাজে তাকে সহযোগিতা করেছেন বিশ্বের ৩০ জন সেরা প্রতিভাধর ভাস্কর্যবিদ।

বালির তৈরি প্রাসাদের স্থায়িত্ব নিয়ে প্রশ্ন উঠতে পারে। কারণ অস্থায়ী কিছু বোঝাতে সাধারণত বালির বাঁধ কিংবার বালির প্রাসাদের উদাহরণ টানা হয়। তবে এই প্রাসাদের স্থায়িত্ব বাড়াতে বালির সাথে কাদা ও আঠার প্রলেপ দেওয়া হয়েছে। এই প্রাসাদ শীত-গ্রীষ্ম-বর্ষা সব ঋতুতেই যেন ঝড়-ঝাপটা সামলাতে পারে এজন্য বালির সাথে ১০ ভাগ কাদা ব্যবহার করা হয়েছে। সঙ্গে দেওয়া হয়েছে আঠার প্রলেপ।
 

তবে এর শৈল্পিক সৌন্দর্যে মুগ্ধ শত শত পর্যটক। ইতিহাসের পাতায় যেন এক অনন্য নিদর্শন হিসেবে নিজেকে ফুটিয়ে তুলেছে এই বালির প্রাসাদ । পাল্লায় পাল্লায় বাড়ছে উচ্চতা ভাংছে রেকর্ড। হয়তো পরবর্তী প্রচেষ্টায় এই ৬৭ ফুটের বালির প্রাসাদ ও পিছনে পরতে পারে।

 

 

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ