Skip to content

২রা মে, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | বৃহস্পতিবার | ১৯শে বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নারী উদ্যোক্তাদের করমুক্ত আয়ের সীমা বৃদ্ধি

এবারের বাজেট বিভিন্ন দিক থেকে বেশ অনেকটাই নারীবান্ধব বলা যায়। এ অর্থবছরে গতবছরের থেকে ৩৩১ কোটি টাকা বৃদ্ধি করে মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের জন্য ৪ হাজার ১৯১ কোটি টাকা বরাদ্দের প্রস্তাব করা হয়েছে। স্যানিটারি ন্যাপকিনের উপর ভ্যাট অব্যাহতি থাকছে, তাই স্বভাবতই দাম কমবে নারীদের অতিপ্রয়োজনীয় পণ্য স্যানিটারি ন্যাপকিনের । 

এছাড়াও এবারের বাজেট সবথেকে বেশি আশীর্বাদ হয়ে এসেছে নারী উদ্যোক্তাদের জন্য। নতুন বাজেটে নারী উদ্যোক্তাদের করমুক্ত আয়ের সীমা বৃদ্ধি করা হয়েছে। নারী উদ্যোক্তাদের করমুক্ত আয়ের সীমা ৭০ লাখ টাকা করার প্রস্তাব করা হয়েছে। যা আগে ছিল ৫০ লাখ। অর্থাৎ, নারী উদ্যোক্তারা এক বছরে ৭০ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করলে তাদের  কোনও কর দিতে হবে না। 

এ বিষয়ে বাজেট বক্তৃতায় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেন, ‘একটি দেশের সামাজিক ও অর্থনৈতিক অগ্রযাত্রা এবং টেকসই উন্নয়নে নারীর অর্থনৈতিক ক্ষমতায়নের গুরুত্ব অপরিসীম। অর্থনীতিতে উদ্যোক্তা হিসেবে পুরুষের পাশাপাশি নারী উদ্যোক্তার সংখ্যা বাড়ছে। এভাবে নারীর অর্থনৈতিক ও সামাজিক ক্ষমতায়ন নিশ্চিত হবে।’

 

এছাড়াও করমুক্ত আয়ের সীমা বৃদ্ধি পাওয়ায় দেশে নারী উদ্যোক্তা এবং ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প (এসএমই) খাত উপকৃত হবে বলেও আশা ব্যক্ত করেন তিনি। নারী উদ্যোক্তাদের করমুক্ত আয়সীমায় এই ছাড় অর্থনীতিতে নারীর ক্ষমতায়নের বিশেষ দিক উন্মোচন করবে বলে অনেকেই আশাবাদী।

 

 

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ