Skip to content

২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দ | মঙ্গলবার | ১০ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আজ আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস!

আজ পহেলা মে, আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস। শ্রমজীবী মানুষের অধিকার ও দাবি আদায়ের লক্ষ্যে প্রতিবছর এই দিনটিতে বিশ্বব্যাপী পালিত হয় আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস। এবছর বাংলাদেশে ‘মালিক-শ্রমিক নির্বিশেষ, মুজিববর্ষে গড়বো দেশ’কে প্রতিপাদ্য ধরে  দিবসটি পালিত হচ্ছে।

প্রতিবছর অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করা হয়। দিনভর বর্ণাঢ্য র‌্যালি ও আলোচনা সভাসহ নানা কর্মসূচি পালন করা হয় । দিবসটি উপলক্ষে সরকারি ছুটিও রয়েছে। বিশ্বের প্রায় ৮০ টি দেশে পহেলা মে জাতীয় ছুটির দিন।  

যদিও করোনা পরিস্থিতির কারণে গত বছর থেকে বরাবরের তুলনায়  কর্মসূচীগুলোতে এসেছে ভিন্নতা। এবছর বিভিন্ন শ্রমিক সংগঠনের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে শ্রমিক সমাবেশ, শোভাযাত্রা, আলোচনা সভা, সেমিনার ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

দিবসটির গুরুত্ব ও তাৎপর্য তুলে ধরে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদেরসহ রাজনৈতিক শীর্ষ নেতারা পৃথক বাণী দিয়েছেন।

উল্লেখ্য, ১৮৮৬ সালে যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো শহরের উপযুক্ত মজুরি আর দৈনিক ৮ ঘণ্টা কাজের দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করেন ওই শহরের কিছু শ্রমিকরা। কিন্তু আন্দোলনরত শ্রমিকদের দমাতে মিছিলে এলোপাথাড়ি গুলি চালায় পুলিশ। এতে ১১ শ্রমিক নিহত হন। এছাড়াও আহত ও গ্রেফতার হন আরও বহু শ্রমিক। এর পরে  গ্রেফতারকৃত শ্রমিকদের মধ্যে ছয়জনকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়। 

এতে করে চলমান বিক্ষোভ আরও প্রকট আকার ধারণ করে। ধীর ধীরে আন্দোলন ছড়িয়ে পড়ে সারাবিশ্বে। পরবর্তী সময়ে আন্দোলনরত শ্রমিকদের দাবি মেনে নিতে বাধ্য হয় যুক্তরাষ্ট্র সরকার। ১৮৮৯ সালের ১৪ জুলাই ফ্রান্সে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক শ্রমিক সম্মেলনে ১ মে শ্রমিক দিবস হিসেবে ঘোষণা করা হয়। পরের বছর ১৮৯০ সাল থেকে পহেলা মে বিশ্বব্যাপী ‘মে দিবস’ বা ‘আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস’ হিসেবে পালন হয়ে আসছে।

স্বাধীনতার পর  বাংলাদেশে ১৯৭২ সালে ১ মে’কে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ‘মে দিবস’ হিসেবে স্বীকৃতি দেন। একইসঙ্গে সরকারি ছুটিও ঘোষণা করেন। এরপর থেকে প্রতিবছর সারাবিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে বাংলাদেশেও পহেলা মে আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস পালিত হয়।

 

 

 

ডাউনলোড করুন অনন্যা অ্যাপ