ডিমে আনুন ভিন্নতা

ডিমে আনুন ভিন্নতা
ছবি: সংগৃহীত
মশলা থেকে তেল ছেড়ে আসার পর বেটে রাখা মিশ্রণ যোগ করুন। আর একটু কষিয়ে নিন। এর পর নারকেল দুধ  দিয়ে দিন, এরপর  ডিমগুলো দিয়ে দিন। শেষে গরম মশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে চুলা বন্ধ করে দিন। রান্না শেষে ওপর দিয়ে ধনেপাতা ছড়িয়ে দিয়ে পরিবেশন করুন ডিমের মালাইকারি।

প্রোটিনের অন্যতম একটি উৎস হল ডিম। সুস্থ থাকতে ডিম খাওয়ার কোনো বিকল্প নেই। পুষ্টিগুণে ভরপুর এই ডিম আমাদের  খাবারের তালিকার নিত্যদিনের সঙ্গী। ফ্যামিলি কিংবা ব্যাচেলর বাসা সকল স্থানে সব সময়ের সহজ খাদ্য হচ্ছে ডিম। আমরা সকলেই প্রায় প্রতিদিনের খাবারে নতুনত্ব আনতে চাই। যারা খাবারে পরিবর্তন আনতে চান তারা ডিমের মালাইকারি করে ফেলতে পারেন। তবে চলুন এবার রেসিপি টি দেখে নেয়া যাক -

 

উপকরণঃ


১।ডিম ৬টি
২।টক দই ২ টেবিল চামচ
৩।পেঁয়াজ কুচি আধা কাপ
৪। টমেটো কুচি আধা কাপ
৫।কাজু বাদাম ২০ গ্রাম
৬।রসুন বাটা ৩ টেবিল চামচ
৭।আদা বাটা ১ টেবিল চামচ
৮।হলুদ গুঁড়ো ১ টেবিল চামচ
৯।শুকনা মরিচ গুঁড়ো ১ টেবিল চামচ
১০।ধনিয়া গুঁড়া হাফ টেবিল চামচ
১১।গরম মশলা গুঁড়ো ১ চা চামচ
১২।নারকেল দুধ আধা কাপ
১৩।লবণ স্বাদ মত
১৪।চিনি স্বাদ মত
১৫।সরিষার তেল পরিমাণ মতো
১৬। ধনেপাতা।

 

প্রণালীঃ

প্রথমে ডিমগুলো সেদ্ধ করে নিতে হবে। একটি পাত্রে টক দই, লবণ, মরিচ গুঁড়া আর সামান্য  তেল দিয়ে আধ ঘণ্টা মাখিয়ে রাখুন সেদ্ধ ডিমগুলোকে। এরপর কড়াইয়ে তেল গরম করে ডিমগুলো হালকা ভেজে তুলে রাখুন। এবার ওই কড়াইয়ে আরও খানিকটা তেল দিয়ে তাতে পেঁয়াজ, টমেটো, কাঁচা মরিচ, কাজুবাদাম, দিয়ে ভাল করে ভেজে নিন। মিশ্রণটি ঠাণ্ডা হয়ে গেলে বেটে নিন।

 

তারপর আবার কড়াইয়ে তেল গরম করে তাতে আদা-রসুন বাটা ও একে একে সব গুঁড়া মশলা দিয়ে ভাল করে কষিয়ে নিন। মশলা থেকে তেল ছেড়ে আসার পর বেটে রাখা মিশ্রণ যোগ করুন। আর একটু কষিয়ে নিন। এর পর নারকেল দুধ  দিয়ে দিন, এরপর  ডিমগুলো দিয়ে দিন। শেষে গরম মশলা গুঁড়ো ছড়িয়ে চুলা বন্ধ করে দিন। রান্না শেষে ওপর দিয়ে ধনেপাতা ছড়িয়ে দিয়ে পরিবেশন করুন ডিমের মালাইকারি।