বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবী সরলা দেবী চৌধুরানীর জন্মদিন আজ

বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবী সরলা দেবী চৌধুরানীর জন্মদিন আজ
বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবী সরলা দেবী চৌধুরানীর জন্মদিন আজ
সরলা দেবী কলকাতার বেথুন স্কুল থেকে এন্ট্রান্স, এফএ এবং ইংরেজিতে অনার্সসহ বিএ পাস করেন। বিএ পরীক্ষায় তিঁনি মেয়েদের মধ্যে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে তিনি ‘পদ্মাবতী স্বর্ণপদক’ লাভ করেন।

সরলা দেবী চৌধুরানীর জন্ম ১৮৭২ সালের ৯ সেপ্টেম্বর মাতুলালয় কলকাতার জোড়াসাঁকোর ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। তিঁনি ছিলেন একজন বিশিষ্ট বাঙালি সাহিত্যিক, সমাজসেবক ও বুদ্ধিজীবী।


সরলা দেবী কলকাতার বেথুন স্কুল থেকে এন্ট্রান্স, এফএ এবং ইংরেজিতে অনার্সসহ বিএ পাস করেন। বিএ পরীক্ষায় তিঁনি মেয়েদের মধ্যে সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে তিনি ‘পদ্মাবতী স্বর্ণপদক’ লাভ করেন। সঙ্গীতজ্ঞ হিসেবেও তাঁর বেশ খ্যাতি ছিল।


জাতীয়তাবাদী চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে সরলা দেবী ‘প্রতাপাদিত্য উৎসব’ ও ‘বীরাষ্টমী ব্রত’ পালন করেন। ১৯৩০ সালে তিঁনি লাহোর থেকে প্রকাশিত উর্দু পত্রিকা হিন্দুস্থান-এর সম্পাদক ও পাঞ্জাবের আর্যসমাজের নেতা পণ্ডিত রামভজ দত্ত চৌধুরীর সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। এই সূত্রে তিঁনি পাঞ্জাবের বিভিন্ন গ্রামে গিয়ে পর্দানশীন মহিলাদের মধ্যে শিক্ষা বিস্তারে উদ্যোগী হন; তাঁর প্রচেষ্টাতেই ১৯৩৫ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় ‘ভারত স্ত্রী মহামণ্ডল’। কলকাতায়ও তিঁনি আরও একটি প্রতিষ্ঠান ‘ভারত স্ত্রীশিক্ষা সদন’  গড়ে তোলেন। সেখানে তিঁনি মহিলাদের মধ্যে তরবারি চালনা, লাঠি খেলা ইত্যাদি প্রচলিত করেন।


ভারতী, সখা ও বালক পত্রিকায় রচনা প্রকাশের মাধ্যমে সরলা দেবীর প্রথম সাহিত্যিক জীবনের শুরু হয়। সাহিত্যচর্চার পাশাপাশি পত্রিকা সম্পাদনার ক্ষেত্রেও সরলা দেবী দারুণ ভূমিকা রাখেন। এছাড়াও তিঁনি শতাধিক স্বদেশপ্রেমের গান রচনা করেন বেশ পরিচিতি অর্জন করেন। তার  রচিত ১০০টি দেশাত্মবোধক গানের একটি সংকলন গ্রন্থ শতগান ১৯০০ সালে প্রকাশিত হয়।

 

সরলা দেবীর উল্লেখযোগ্য গ্রন্থগুলো হলো: বাঙালির পিতৃধন, ভারত-স্ত্রী-মহামণ্ডল,  নববর্ষের স্বপ্ন,  জীবনের ঝরাপাতা, বেদবাণী ইত্যাদি। ১৯৪৫ সালের ১৮ আগস্ট বিশিষ্ট এই বুদ্ধিজীবী প্রয়াত হোন।