প্যান্ট হোক গরম উপযোগী

প্যান্ট হোক গরম উপযোগী
প্যান্ট হোক গরম উপযোগী
সামার ডেনিমগুলো সাধারণভাবেই বেশ হালকা ও ঢিলেঢালা হয়ে থাকে। আবার স্ট্রেইট কাট প্যান্টও ট্রেন্ডি হয়ে উঠছে। গরমের জন্য যেগুলো স্বস্তিদায়ক। কারণ, এই তীব্র গরমে ন্যারো কাট, ফিটেড বা স্কিনি প্যান্ট খুব একটা স্বস্তিদায়ক হয় না। 

গরমে সবথেকে স্বস্তির হওয়া দরকার যে জিনিসটি সেটা হচ্ছে পোশাক। অসহ্য তাপমাত্রা হলেও নিয়মিত জীবনের কার্যসিদ্ধি করতেই হয়। অফিস বলি যেকোন প্রয়োজনের জায়গায় নিজেকে তো পরিপাটি করে উপস্থাপন করতেই হয়। আর প্রতিদিনে পোশাকের একটা কমন ভারী পোশাক হচ্ছে প্যান্ট৷ আবহাওয়া বদলের সাথে সাথে আমার অন্য পোশাক যেমন শার্ট টিশার্ট এগুলো বদলে নি প্যান্ট সেরকম বদলাতে পারিনা। 

 

তবে এই গরমে আরাম ও স্বস্তিদায়ক প্যান্ট বেছে নিতে পারেন যা আবার ট্রেন্ডিও। 

 

এই যেমন ডেনিম। সামার ডেনিমগুলো সাধারণভাবেই বেশ হালকা ও ঢিলেঢালা হয়ে থাকে। আবার স্ট্রেইট কাট প্যান্টও ট্রেন্ডি হয়ে উঠছে। গরমের জন্য যেগুলো স্বস্তিদায়ক। কারণ, এই তীব্র গরমে ন্যারো কাট, ফিটেড বা স্কিনি প্যান্ট খুব একটা স্বস্তিদায়ক হয় না। 

 

আশির দশকের থ্রেড কাট জিনসও ট্রেন্ডে চলে আসছে। এছাড়াও কিছু কিছু আন্তর্জাতিক ফ্যাশন ব্র্যান্ড পরীক্ষামূলক ভাবে টাইডাই, স্ট্রাইপড এবং কালার শেড ডেনিমও নিয়ে এসেছে। এমনকি  ডিস্ট্রেসড ডেনিম, জগার এবং সিগারেট জিনস বেশ কয়েক বছর ধরেই  ট্রেন্ডে রয়েছে।  যেগুলো দেখতে মানানসই আবার আরামদায়কও। 

 

আরামদায়ক প্যান্টের কথা বললে অবশ্য সবার আগে ট্রাউজারের কথাই আসে। ট্রাউজারের কয়েক জাত আছে যা ক্যাজুয়াল লুকে মানানসই একটা লুক দিতে পারে। যেমন কার্গো ট্রাউজার বা মোবাইল প্যান্ট। তবে কর্মক্ষেত্রে এধরণের প্যান্ট পরার নিয়ম না থাকলে বেছে নিতে পারেন চিনোস। এছাড়াও রয়েছে বেশ কয়েক ধরনের প্যান্ট আছে যেগুলো বেশ গরমে উপযোগী। যেমন স্লিম বা রেগুলার ফিট গ্যাবার্ডিন ও সোয়েটপ্যান্টস। চিনোস অনেকটা এগুলোর ক্যাটাগরির। 


নিজের ব্যক্তিগত জায়গায় যেমন বন্ধুদের সাথে আড্ডায়, বাসায় বা ট্যুরে পড়া যেতে পারে সবথেকে আরামদায়ক থ্রী কোয়াটার।