'বঙ্গবন্ধু' বায়োপিকে তোফায়েল আহমেদের চরিত্রে সাব্বির

'বঙ্গবন্ধু' বায়োপিকে তোফায়েল আহমেদের চরিত্রে সাব্বির
ছবিঃ সংগৃহীত
‘বঙ্গবন্ধু’র শুটিংয়ে অংশ নিতে ফেব্রুয়ারিতে মুম্বাই যান সাব্বির আহমেদ। সেখানে ১৩ দিন ছিলেন তিনি। এ বছরের অক্টোবরে বাংলাদেশে তাঁর আবার শুটিংয়ে অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে। ছবিতে বঙ্গবন্ধু চরিত্রে অভিনয় করছেন আরিফিন শুভ। বাংলাদেশ ও ভারতের যৌথ প্রযোজনায় তৈরি এই ছবির পরিচালক শ্যাম বেনেগাল।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বায়োপিকে তোফায়েল আহমেদের চরিত্রে অভিনয় করছেন নাট্যাভিনেতা সাব্বির আহমেদ। বরেণ্য এ রাজনীতিবিদের জীবনের ২৬ থেকে ৩৩ বছর বয়সী ছাত্রনেতা চরিত্রে দেখা যাবে তাকে। চরিত্রটিতে কাজ করতে পেরে নিজেকে ভাগ্যবান মনে করেছেন এই অভিনেতা।   

 
চলচ্চিত্রে তোফায়েল আহমেদের চরিত্র রূপদান করতে পারাটাকে জীবনের অনেক বড় অর্জন মনে করছেন সাব্বির। তিনি বলেন, ‘এমন একজন রাজনীতিবিদের চরিত্রে অভিনয় করতে পারাটা আমার জন্য অনেক বড় পাওয়া। চরিত্রটির জন্য আমি তার বিভিন্ন সময়ের ভিডিও ফুটেজ, তাকে নিয়ে লেখা বই পড়েছি। তোফায়ের ভাইয়ের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে তার থেকে অনেক কিছু জেনেছি। এত বড় মাপের নেতার চরিত্রে রূপদান করা সত্যিই কঠিন। তার জীবন এত রোমাঞ্চে ভরা, ত্যাগ-তিতিক্ষাপূর্ণ- যা খুবই বিরল। আমি আমার শতভাগ দেয়ার চেষ্টা করেছি। বাকিটা পর্দায় দেখে মানুষ মূল্যায়ন করবেন।'


‘বঙ্গবন্ধু’র শুটিংয়ে অংশ নিতে ফেব্রুয়ারিতে মুম্বাই যান সাব্বির আহমেদ। সেখানে ১৩ দিন ছিলেন তিনি। এ বছরের অক্টোবরে বাংলাদেশে তাঁর আবার শুটিংয়ে অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে। ছবিতে বঙ্গবন্ধু চরিত্রে অভিনয় করছেন আরিফিন শুভ। বাংলাদেশ ও ভারতের যৌথ প্রযোজনায় তৈরি এই ছবির পরিচালক শ্যাম বেনেগাল।


ছবিতে বঙ্গবন্ধু হিসেবে আরিফিন শুভ ও শেখ হাসিনা হচ্ছেন নুসরাত ফারিয়া। এছাড়াও বঙ্গবন্ধুর স্ত্রী ফজিলাতুন নেছা মুজিবের চরিত্রে অভিনয় করবেন নুসরাত ইমরোজ তিশা। অন্য গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রগুলোয় দেখা যাবে- খায়রুল আলম সবুজ (লুৎফর রহমান), দিলারা জামান (সাহেরা খাতুন), সায়েম সামাদ (সৈয়দ নজরুল ইসলাম), শহীদুল আলম সাচ্চু (এ কে ফজলুল হক), প্রার্থনা দীঘি (ছোট রেনু), রাইসুল ইসলাম আসাদ (আবদুল হামিদ খান ভাসানী), গাজী রাকায়েত (আবদুল হামিদ), তৌকীর আহমেদ (সোহরাওয়ার্দী), সিয়াম আহমেদ (শওকত মিয়া) ও মিশা সওদাগর (জেনারেল আইয়ুব খান), এলিনা (বেগম খালেদা জিয়া)।


বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক নিয়ে এই ছবিটির শুটিং শুরু হয় ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে। মুম্বাইয়ের দাদাসাহেব ফিল্ম সিটিসহ বেশ কয়েকটি এলাকায় দৃশ্য ধারণ হয় ছবিটির।