নিলামে তোলা হবে 'মোনালিসা হেকিং'

নিলামে তোলা হবে 'মোনালিসা হেকিং'
নিলামে তোলা হবে 'মোনালিসা হেকিং'
আগামী শুক্রবার (১১ জুন) ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে এই নিলামের আয়োজন করা হবে। নামকরা নিলাম প্রতিষ্ঠান ক্রিস্টির প্যারিসের একটি নিলাম হাউসে মোনালিসার রেপ্লিকা চিত্রকর্মটির নিলাম হবে। চিত্রকর্মটি ৩ লাখ ইউরোয় বিক্রি হওয়ার আশা করা হচ্ছে, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩ কোটি ১০ লাখেরও বেশি।

বিখ্যাত চিত্রকর্ম মোনালিসার কথা কে না জানে। ইতালির প্রখ্যাত চিত্রশিল্পী লিওনার্দো দা ভিঞ্চির আঁকা মোনালিসা চিত্রকর্মটিকে ঘিরে রয়েছে নানা রহস্য। সেই রহস্যে নতুন মাত্রা যোগ করেছিলো হুবহু একই দেখতে মোনালিসার মতো আরেকটি চিত্রকর্ম। যার নাম 'মোনালিসা হেকিং' এমনকি তার জন্য প্রশ্ন উঠেছিলো ভিঞ্চির আঁকা মোনালিসা চিত্রকর্মটি খাঁটি কি না। এবার আলোচিত সেই রেপ্লিকা মোনালিসা চিত্রকর্মটি তোলা হবে নিলামে। 


আগামী শুক্রবার (১১ জুন) ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসে এই নিলামের আয়োজন করা হবে। নামকরা নিলাম প্রতিষ্ঠান ক্রিস্টির প্যারিসের একটি নিলাম হাউসে মোনালিসার রেপ্লিকা চিত্রকর্মটির নিলাম হবে। চিত্রকর্মটি ৩ লাখ ইউরোয় বিক্রি হওয়ার আশা করা হচ্ছে, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৩ কোটি ১০ লাখেরও বেশি।


১৯৫০ এর দশকের দিকে ফ্রান্সের নিস শহরে একজন চিত্রকর্ম ব্যবসায়ীর কাছ থেকে মোনালিসা চিত্রকর্মের এই রেপ্লিকাটি কেনেন রেমন্ড হেকিং নামের এক ব্যক্তি।  তার নাম অনুসারে এই রেপ্লিকাটি মোনালিসা হেকিং নামে পরিচিত হয়। আর তার পরপরই আসল মোনালিসাকে নিয়ে প্রশ্ন তুলেন তিনি। এমনকি ফ্রান্সের ল্যুভর মিউজিয়ামে থাকা মোনালিসা আসল কি না, তা নিয়ে সন্দেহে ফেলে দিয়েছিলেন তিনি। 


প্রসঙ্গত,  ১৯১১ সালের কোন এক সময় মোনালিসার বিশ্বজুড়ে ব্যাপক জনপ্রিয়তার কারণে ল্যুভর মিউজিয়াম থেকে এটি চুরি হয়ে যায়। ল্যুভর মিউজিয়ামের ভিনসিনজো পেরুজিয়া নামের একজন কর্মকর্তা সেটি চুরি করেন। এর দুবছরের মাথায় ১৯১৩ সালে ফ্রান্সের ফ্লোরেন্সে প্রাচীন জিনিসপত্রের ক্রেতা এক ব্যবসায়ীর কাছে বিক্রির সময় মোনালিসা চিত্রকর্মটি উদ্ধার করা হয়। আর একারণে হেকিং এর প্রশ্নে  লুভ্যর মিউজিয়ামে থাকা মোনালিসাকে নিয়েও বিশ্ববাসীর সন্দেহ প্রবল হয়।


তবে ধারনা করা হয় ১৭তম শতাব্দীর প্রথম দিকে ভিঞ্চির এক অনুসারী ওই চিত্রকর্মটি আঁকেন। এরপর ১৯৭৭ সালে মারা যান 'মোনালিসা হেকিং' এর মালিক হেকিং। যে কারণে বর্তমানে ক্রিস্টির প্যারিসের একটি নিলাম হাউসে মোনালিসার রেপ্লিকা চিত্রকর্মটির নিলাম হবে। ক্রিস্টি এক বিবৃতিতে এ বিষয়ে বলে, ‘এই চিত্রকর্ম ও তার ইতিহাস প্রবল মুগ্ধতাকে তুলে ধরেছে যা মোনালিসা ও লিওনার্দো দা ভিঞ্চির অলৌকিক আভাকেই সর্বদা ধারণ করে।’