শুক্রবার,২৪ নভেম্বর ২০১৭
হোম / বিজ্ঞান-প্রযুক্তি / উবার এল ঢাকায়
০১/১২/২০১৭

উবার এল ঢাকায়

-

স্মার্টফোন অ্যাপ্লিকেশন নির্ভর অন-ডিমান্ড ট্যাক্সি পরিবহনসেবা হিসেবে ‘উবার’ পৃথিবীর বড় বড় শহরগুলোতে ব্যাপক পরিচিত এবং জনপ্রিয়। এরই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি রাজধানী ঢাকায় প্রথমবারের মতো এই সার্ভিস চালু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। বাংলাদেশের ক্রিকেট নক্ষত্র সাকিব আল হাসানকে ‘প্রথম যাত্রী’ করার মাধ্যমে শুরু হওয়া এই সার্ভিসটি এদেশের মধ্যবিত্ত বা উচ্চমধ্যবিত্ত সমাজের মানুষের জীবনযাপনে প্রভাব ফেলবে, তা নিঃসন্দেহে বলা যায়। সার্ভিসটি ব্যবহারের জন্যও রয়েছে স্মার্টফোন অ্যাপ্লিকেশন।

উবারের ইতিবৃত্ত

উবার মূলত একটি আমেরিকান অনলাইন ট্রান্সপোর্টেশেন নেটওয়ার্ক কোম্পানি। বিশ্বের বিভিন্ন শহরে গ্রাহক বিশেষ স্মার্টফোন অ্যাপের মাধ্যমে যে কোনো সময়ে এই অন-ডিমান্ড পরিবহন সেবা পাবেন। প্রতিষ্ঠানটির মূল কার্যালয় যুক্তরাষ্ট্রের স্যান ফ্র্যান্সিসকোতে। তবে প্রতিবেশী দেশ ভারতেও এর অফিস রয়েছে। সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের ৭৪টি দেশের ৪৫০টি শহরে এই সেবা প্রদান করছে প্রতিষ্ঠানটি। প্রতিদিন গড়ে ৫০ লাখেরও বেশি মানুষ এই সার্ভিসটি ব্যবহার করছেন। সম্প্রতি দক্ষিণ এশিয়ার ৩৩তম শহর হিসেবে ঢাকায় এই সেবা চালু করা হলো।

-এই সার্ভিসের জন্যে প্রথমে অ্যাপল স্টোর কিংবা গুগুল প্লে স্টোর থেকে অ্যাপটি স্মার্টফোন ডিভাইসে ইনস্টল করে নিতে হবে।

-অ্যাপটিতে আপনি গ্রাহক হিসেবে সেবা ভোগ করার পাশাপাশি চালক হওয়ার আবেদনও করতে পারবেন। তবে উবারের নিজস্ব কোনো গাড়ি নেই। ব্যক্তিগত গাড়ি আছে, এমন যে কেউ অ্যাপটির মাধ্যমে উবারের চালক হিসেবে নিবন্ধন করতে পারবেন। এজন্য চালককে ইমেইল ও ফোন নম্বর দিতে হবে।

-ইচ্ছুক গ্রাহক তার পছন্দ অনুসারে কোনো চালককে অ্যাপের মাধ্যমে রিকোয়েস্ট পাঠাবেন এবং চালককে দ্রুত ঐ স্থানে পৌঁছাতে হবে। গ্রাহক রিকোয়েস্ট পাঠানোর সঙ্গে সঙ্গে গাড়ির নম্বর, চালকের নাম ও ফোন নম্বর জানতে পারবেন এবং চালকের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবেন।

-সাধারণ নিয়মানুযায়ী যাত্রী ট্যাক্সিতে ওঠার পর থেকে ভাড়ার হিসাব শুরু হবে। তবে কোনো কারণে গ্রাহক যাত্রা বাতিল করলে জরিমানা দিতে হবে। গন্তব্যে পৌঁছানোর পর যাত্রী নগদ টাকা কিংবা ক্রেডিট-ডেবিট কার্ড ব্যবহার করে ভাড়া পরিশোধ করতে পারবেন।

-উবারের নিজস্ব ওয়েবসাইট https://www.uber.com/-এ ইতোমধ্যে ঢাকা শহরের বিভিন্ন স্থানে উবারের চালক খুঁজে পেতে বিশেষ ফিচার যোগ করা হয়েছে। এছাড়া অ্যান্ড্রয়েড গ্রাহকরা- https://goo.gl/xEZdLH এই ঠিকানা থেকে অ্যাপটি ইনস্টল করে নিতে পারবেন। আইওএস ব্যবহারকারীরা এক্ষেত্রে https://goo.gl/6JFrtn -লিংক থেকে অ্যাপটি নিজেদের ডিভাইসে ইনস্টল করে নিতে পারবেন।

পরিবহনসেবা হিসেবে উবার

আপাতদৃষ্টিতে কর্মজীবী মানুষদের জন্য যাতায়াত সুবিধা সহজ করতে সার্ভিসটি বেশ কাজে আসবে বলা যায়। তবে এই সার্ভিসটি নিয়ে কিছু চিন্তার বিষয়ও আছে। প্রথমত ব্যক্তিগত গাড়ি ভাড়ায় ব্যবহার করার জন্য আইনি বিষয়গুলো প্রতিষ্ঠানটি কিভাবে সামলাবে তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। বাংলাদেশের মতো তৃতীয় বিশ্বের দেশে কর্মজীবী নারীদের পরিবহন সুবিধা বরাবরই বড় সমস্যা। উবারের মতো অন-ডিমান্ড পরিবহন সেবা কাগজে কলমে এ সমস্যা সমাধানে কার্যকর বলে মনে হলেও চালকের কাছে যাত্রী কতটা নিরাপদ তা নিয়ে শঙ্কা থেকেই যায়। তাই এই পরিবহন সেবা বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বেশ জনপ্রিয় হলেও ২০১৪ সালে দিল্লিতে যাত্রী ধর্ষণসহ বিভিন্ন শহরে যাত্রীর শ্লীলতাহানি কিংবা অসদাচরণের অভিযোগ এসেছে অনেক উবার চালকের বিরুদ্ধে।

ঢাকা শহরের উচ্চবিত্ত থেকে মধ্যবিত্ত শ্রেণির অনেকের কাছে উবার দ্রুত গন্তব্যে পৌঁছানোর মাধ্যম হয়ে দাঁড়াবে এ নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। তবে যাত্রীর সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে প্রাথমিকভাবে সেবাটি বেশ গুরুত্বের সঙ্গে পর্যবেক্ষণেরও দরকার রয়েছে।

- নাসিফ