রবিবার,২০ অগাস্ট ২০১৭
হোম / অন্দর-বাগান / ঘর সাজাতে বেতের আসবাব
১২/১৮/২০১৬

ঘর সাজাতে বেতের আসবাব

-

আসবাবপত্রের জন্য আকর্ষণীয়, হালকা এবং দীর্ঘস্থায়ী একটি উপাদান হলো বেত। এখনো সৌখিন মানুষদের লিভিংরুমে বেতের তৈরি আসবাবপত্রের দেখা মেলে। আবার অনেক এ্যাপার্টমেন্টের বারান্দায় বেতের চেয়ার দেখা যায়, যেখানে নিরিবিলিতে বসে প্রিয় মানুষের সঙ্গে চা খেতে খেতে সময় কাটানো যায়। আপনার ঘরের কোণে ছোট একটা বেতের ওয়্যারড্রোব বা বারান্দায় একটি দোলনা এনে দিতে পারে ভিন্ন আমেজ। এছাড়া পুরো বাসাও সাজাতে পারেন শুধু বেতের আসবাব দিয়ে। কারণ খাট, সোফা, ডাইনিং টেবিল, আলনা, ওয়্যারড্রোব, ডিভান ইত্যাদি সব পাবেন বেতের ফার্নিচারের দোকানে। এছাড়া বেতের তৈরি চেয়ার, মোড়া, দোলনা, বাঁশি, ফটোফ্রেম দিয়ে অনেককেই মনোমতো ঘর সাজাতে দেখা যায়।

ভিন্নধর্মী জিনিস দিয়ে ঘর সাজাতে চাইলে নিঃসন্দেহে বেতের আসবাবপত্র বেছে নিতে পারেন। আর বাজেট কম থাকলে বেতের বিকল্প আর কিছুই হয় না। কাঠ ও অন্যান্য জিনিসের তৈরি আসবাবের চেয়ে বেতের আসবাবপত্র যেমন দামে কম, তেমনি টেকসই, পরিবেশবান্ধব ও আধুনিক। নতুনত্ব আনার জন্য প্রাকৃতিক রং ছাড়াও কফি,অফ হোয়াইট ও বার্নিশের প্রচলন দেখা যাচ্ছে আজকাল বেতের তৈরি আসবাবের ক্ষেত্রে।

আপনার বাড়ির ভেতর বা বারান্দায়, যেখানেই বেতের আসবাবপত্র রাখুন না কেন, দীর্ঘস্থায়ী ব্যবহারের জন্য তা পরিচ্ছন্ন এবং যত্নে রাখা প্রয়োজন।

বেতের আসবাবপত্রের যত্নে যা দরকার:

ডিশওয়াশিং ডিটারজেন্ট, পানি, নরম কাপড়, পাত্র, টুথব্রাশ, তিসির তেল, বার্নিশ, তুলি।

পরিষ্কার করার নিয়ম:

১। একটি পাত্র পানি দিয়ে পরিপূর্ণ করুন এবং এতে কয়েক ফোঁটা ডিশওয়াশিং ডিটারজেন্ট পাউডার দিয়ে বুদবুদ না ওঠা পর্যন্ত নাড়তে থাকুন।

২। নরম কাপড়টি বুদবুদের অংশে হালকা ডুবিয়ে নিন। তবে খেয়াল রাখবেন, তা যেন পানিতে একদম ভিজে না যায়।

৩। এবার বেতের আসবাবপত্রগুলো কাপড়টি দিয়ে মোছা শুরু করুন। বুদবুদের সামান্য আর্দ্রতায় বেতগুলো পরিষ্কার হয়; কিন্তু পানির সংস্পর্শে এলেই বেত নষ্ট হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা বেড়ে যায়।

৪। টুথব্রাশ বা তুলিব্রাশ সাহায্য করবে বেতের ফাটল ও সরু জায়গাগুলোর ভিতরে পরিষ্কার করতে, সাধারণত কাপড় এ সকল জায়গায় প্রবেশ করতে পারে না।

৫। ভালো ফলাফলের জন্য সপ্তাহে একবার আপনার বেতের ফার্নিচার এভাবে পরিস্কার করুন।

৬। এছাড়া, শুকনো, ফেটে যাওয়া বেতকে পুরানো অবস্থায় ফিরিয়ে আনতে চাইলে সিদ্ধ তিসির তেল একটি ব্রাশের সাহায্যে ঐ জায়গাগুলোতে লাগাতে থাকুন। যখন বেতের অংশটুকু আর তেল শুষে নেবে না, নরম পরিষ্কার একটি কাপড় দিয়ে জায়গাটুকু মুছে নিন।

৭। একেবারে পরিচ্ছন্ন বা দাগ মুছে ফেলতে সাধারণত বেত পরিষ্কারের সময় যতটুকু পানি লাগে, তার চেয়ে একটু বেশি পানির সঙ্গে ডিটারজেন্ট পাউডার মিশিয়ে মাজতে হবে। এরপর রোদে শুকোতে দিন বা হেয়ার ড্রায়ার দিয়ে শুকিয়ে নিন। আসবাবটি শুকিয়ে গেলে এতে একবার পেইন্ট ব্রাশ করে বার্নিশ করিয়ে নিন। এটি প্রতিবছরে একবার করে করুন।

মনে রাখবেন:

- যদি বেশির ভাগ সময় বেতের আসবাব ঘরের বাইরে রাখা হয়, তবে খুব বেশি সময় তা সরাসরি রোদে রাখা উচিত নয়। এতে বেতগুলো তাড়াতাড়ি ভেঙে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।

- কয়েকটি চারকোণা রাবার বেতের আসবাবপত্রের পায়ার নিচে রাখুন। এটি পায়ার কুশন হিসেবে কাজ করবে এবং এতে বেত ভেঙে বা ফেটে যাওয়া থেকে রক্ষা পাবে।

- মনে রাখবেন, বেতের আসপত্রের যত্নে তিলের ফুটানো বা সিদ্ধ তেল ব্যবহার করতে হবে। কেননা কাঁচা তেল ব্যবহার করলে তা শুকিয়ে বেতের উপর সেট হবে না।

- নুসরাত ইসলাম