রবিবার,২০ অগাস্ট ২০১৭
হোম / বিনোদন / মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র
১২/০৮/২০১৬

মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র

-

এসেছে বিজয়ের মাস ডিসেম্বর। এদেশের আপামর জনতার কাছে এই মাসটি শুধুমাত্র ক্যালেন্ডারের সাধারণ একটা পাতাই নয়। বরং এর সঙ্গে মিশে আছে ৩০ লক্ষ শহিদের রক্তের স্মৃতি, সম্ভ্রম হারানো মা-বোনের আহাজারি এবং ২৪ বছর ধরে পাক শাসনামলের যাঁতাকলে নিষ্পেষিত বাঙালির স্বাধীনতার সুখ। একুশ শতকে এসে মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি রোমন্থন করে শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র বেশ সহায়কই বলা চলে। বিজয়ের মাসে এমনই কয়েকটি মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক চলচিত্রকে উপজীব্য করেই আমাদের আজকের আয়োজন।

ওরা ১১ জন
মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচিত্র ‘ওরা ১১জন’ মুক্তি পায় স্বাধীনতার ঠিক পরের বছর অর্থাৎ ১৯৭২ সালে। মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সময়ে এই ১১জন মুক্তিযুদ্ধের সময় ১১জন বীর নিয়ে গঠিত গেরিলাদলের পাক হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে চালানো অভিযান সেলুলয়েডের পর্দায় প্রায় জীবন্তভাবে উপস্থাপন করেছেন গুণী চিত্র পরিচালক চাষী নজরুল ইসলাম। ছবিটির কয়েকটি প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন নায়করাজ রাজ্জাক, শাবানা এবং নূতনসহ আরো অনেকেই। সবচেয়ে উল্রেখ্যযোগ্য হলো এই ছবিতে খসরু, মুরাদ, নান্টুসহ বেশ কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধাও অভিনয় করেছেন। ছবিতে “ও আমার দেশের মাটি তোমার’পরে ঠেকাই মাথা” কিংবা সাবিনা ইয়াসমিনের কণ্ঠে “এক সাগর রক্তের বিনিময়ে বাংলার স্বাধীনতা আনলে যারা” এই গানগুলো দর্শকের চোখের কোণ ভিজিয়ে যাবে, তা বলাই যায়।

আবার তোরা মানুষ হ
বাংলা চলচিত্রের অন্যতম পথিকৃৎ খান আতাউর রহমান পরিচালিত ‘আবার তোরা মানুষ হ’ চলচ্চিত্রটি মুক্তি পায় ১৯৭৩ সালে। ছবিতে মুক্তিযুদ্ধপরবর্তী বাস্তবতা অত্যন্ত সুনিপুণভাবে ফুঁটিয়ে তোলা হয়েছে। তবে চলচ্চিত্রটিতে স্বাধীণতাপরবর্তী সময়ে হতাশ কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধার বিপথে যাওয়ার ঘটনা দেখানো হয়েছে এবং এর কারণে পরিচালক অনেকের কাছেই সমালোচিতও হয়েছেন। তবে মুক্তিযুদ্ধপরবর্তী জীবনে এদেশে ভাগ্যাহত মুক্তিযোদ্ধাদের সম্পর্কে জানতে এই চলচ্চিত্রের বিকল্প নেই। এ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন রাইসুল ইসলাম আসাদ, ববিতা প্রমুখ।

আগুনের পরশমণি
আধুনিক বাংলা সাহিত্যের মহাপুরুষ হুমায়ূন আহমেদ পরিচালত ‘আগুনের পরশমণি’ চলচ্চিত্রটি আজো লাখো মানুষের মনের মণিকোঠায় সযতনে স্থান করে নিয়েছে। একাত্তরের ভয়াল দিনগুলিতে ঢাকায় অবরুদ্ধ একটি পরিবারের উৎকণ্ঠা এবং সেই পরিবারে একের পর এক মুক্তিযোদ্ধার আশ্রয় নেওয়ার ঘটনাকে উপজীব্য করেই অসাধারণ এক চলচ্চিত্র নির্মাণ করেছিলেন হুমায়ূন আহমেদ। ১৯৯৪ সালে মুক্তি পাওয়া এই চলচিত্রটিতে অভিনয় করেছেন আবুল হায়াত, বিপাশা হায়াত, ডলি জহুর এবং আসাদুজ্জামান নূরের মত শক্তিমান শিল্পীরা।

হাঙ্গর নদী গ্রেনেড
জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক সেলিনা হাসানের ‘হাঙ্গর নদী গ্রেনেড’ উপন্যাস অবলম্বনে একই নামে ১৯৯৫ সালে চাষী নজরুল ইসলাম নির্মাণ করেন এই অনন্যমাস্টারপিস। মুক্তিযুদ্ধের বেশ আগে গ্রামের এক সাধারণ কিশোরীর সরল জীবন, বিয়ে-সংসার এবং হঠাৎ কালবৈশাখির ছোবলের মতো ৭১-এর ভয়াল দিনগুলোর আবির্ভাব-মূলত এই বিষয়গুলো নিয়েই চলচ্চিত্রের কাহিনি সাজানো হয়েছে। চলচিত্রটিতে ৭১-এর নয় মাসে গ্রামের এক অসহায় মায়ের একে একে সন্তান হারানোর মর্মান্তিক কাহিনি দেখে পাষাণ-হৃদয়ও গলতে বাধ্য। চলচিত্রটিতে সুচরিতার অনন্য অভিনয় বাংলা চলচ্চিত্রে নতুনমাত্রা যোগ করেছে বৈ কি।

জয়যাত্রা
বিখ্যাত কাহিনিকার এবং চলচ্চিত্র পরিচালক আমজাদ হোসেনের কাহিনি অবলম্বনে ২০০৪ সালে তৌকির আহমেদ নির্মাণ করেন মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচিত্র জয়যাত্রা’। ১৯৭১ সালের এপ্রিল মাসের প্রথম সপ্তাহে ভাগ্যবিড়ম্বিত একদল সাধারণ মানুষ প্রাণভয়ে পলায়নরত অবস্থায় আশ্রয় নেয় একটি নৌকায়। এক নৌকায় জীবনের ভিন্ন ভিন্ন পথের মানুষগুলোর জীবনসংগ্রাম এবং হানাদার বাহিনীর হাত থেকে নিজেদের রক্ষা করার চেষ্টা নিয়েই চলচ্চিত্রটির কাহিনি আবর্তিত হয়েছে। এই চলচ্চিত্রের অভিনেতাদের মধ্যে বিপাশা হায়াত, আজিজুল হাকিম, হুমায়ুন ফরীদি, তারিক আনাম খান, আবুল হায়াত অন্যতম।

গেরিলা
সমসাময়িক মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্রের মধ্যে ২০১১ সালে নাসিরুদ্দিন ইউসুফ পরিচালিত ‘গেরিলা’র কথা না বললেই নয়। চলচ্চিত্রটিতে ৭১-এর ২৫মার্চ কালোরাতে স্বামী হারানো একনারীর সংগ্রামের গল্প ফুটিয়ে তুলেছেন অভিজ্ঞ অভিনেত্রী জয়া আহসান। স্বামী হারানো সেই নারী পরবর্তীতে এক সময় নিজেই মুক্তিযুদ্ধে জড়িয়ে পড়ে এবং সহযোদ্ধাদের সঙ্গে গড়ে তুলে ‘গেরিলা’ নামের একটি পত্রিকা। এই চলচ্চিত্রটিতে ফেরদৌস, এটি এম শামসুজ্জামান, রাইসুল ইসলাম আসাদ, শম্পা রেজাসহ আরো অনেকেই অভিনয় করেছেন। তবে যুদ্ধচলাকালীন সময়ে স্বামী-স্বজন হারানো একনারীর ঘুরে দাঁড়ানোর এক সাহসী গল্প চলচ্চিত্রের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলার জন্য পরিচালক নাসিরুদ্দিন ইউসুফ এবং অভিনেত্রী জয়া আহসানকে বিশেষ ধন্যবাদ দিতেই হয়।

- নাইব মুহাম্মদ রিদোয়ান