মঙ্গলবার,১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮
হোম / ফ্যাশন / ঈদের দিনের সতেজ সাজ
০৮/১৯/২০১৮

ঈদের দিনের সতেজ সাজ

-

সময়টাই এমন। টানা গরমে হঠাৎ বৃষ্টি। কখনওবা থেমে থেমে হচ্ছে ঝির ঝির বৃষ্টি। আবার কখনও টানা বর্ষণ, সঙ্গে রয়েছে ভ্যাপসা গরম। আবহাওয়ার এমন আচরণে চলতিপথে পড়তে হয় বিপাকে। তাই বলে ঈদে সাজবো না! তা কি হয়! হাজার কাজের মধ্যেও নিজেকে গুছিয়ে রাখতে হবে। আর এই আবহাওয়ায় নিজেকে কিছুটা গুছিয়ে রাখতে সহজ কিছু টিপস অনুসরণ করলেই চলবে।

বর্ষায় পোশাক নির্বাচনের ক্ষেত্রে জর্জেট, শিফন টাইপের পোশাক নির্বাচন করা উচিত। এতে বৃষ্টিতে ভিজে গেলেও তাড়াতাড়ি শুকিয়ে যাবে। প্রকৃতির সঙ্গে মিলিয়ে গাঢ়নীল সবুজ রঙের পোশাক পরতে পারেন। এছাড়া উজ্জ্বল হলুদ, কমলা, বেগুনি ইত্যাদি রংগুলো ঘোলাটে দিনগুলোতে বেশ ভালো লাগে। তবে রোদের কারণে চাইলে হালকা রংও থাকতে পারে পছন্দের তালিকায়।

এই মৌসুমে লম্বা জামাগুলো তুলে রাখুন। পালাজ্জোর বদলে লেগিংস, সালোয়ার বা প্যান্ট স্টাইলের সালোয়ার বেছে নিন। এতে জামা বা সালোয়ারের নিচে কাদা গেলে অস্বস্তিতে পড়তে হবে না।

গরমে ত্বক তৈলাক্ত হয়ে যায় এবং অতিরিক্ত ঘাম হয়। অন্যদিকে হুটহাট বৃষ্টিতেও মেইকআপ নষ্ট হওয়ার ঝুঁকি থাকে। তাই এই সময় মেকআপ হওয়া চাই ওয়াটার প্রুফ।

এ সময়ে দিনের বেলা গরমে গাঢ় সাজ যেমন মানানসই নয়, তেমনি অন্যদের চোখেও তা দৃষ্টিকটু লাগে। তাই সব মিলিয়ে সাজসজ্জায় স্নিগ্ধভাব থাকা চাই। এ জন্য হালকা মেকআপই ভালো। দিনের বেলায় ফাউন্ডেশন না লাগিয়ে বিবি ক্রিম বা মুজ ফাউন্ডেশন বেছে নেওয়া যেতে পারে। এর উপর ফেইস পাউডার বুলিয়ে নিন।

চোখের সাজেও গাঢ় রং এড়িয়ে হালকা শ্যাডো বেছে নিন। চাইলে কাজলের রেখা টানতে পারেন ঘন করে। এই মৌসুমে কালো কাজলের বদলে রঙিন কাজলও হতে পারে অনুষঙ্গ। দিনের সাজে নেভি ব্লু, বাদামি, সবুজ রঙের কাজল বেশ মানিয়ে যায়।

ত্বক ঘামার প্রবণতা এই সময় বেশি থাকে তাই চাইলেই হাইলাইটার এড়িয়ে যাওয়া যায়। বেছে নিতে পারেন হালকা গোলাপি বা কোরাল কালারের ব্লাশ।

দিনের সাজে গাঢ় লিপস্টিক না দিয়ে হালকা ও ন্যুড কালারগুলো বেছে নিন। তবে হালকা সাজের সঙ্গে উজ্জ্বল লাল, মেরুন, ম্যাজেন্টা ইত্যাদি লিপস্টিক ভালোই মানানসই। বর্ষার দিনগুলোতে উজ্জ্বল লিপস্টিক বেশ ভালো লাগে।

কাজল মাস্কারা বাছাইয়ে অবশ্যই ওয়াটারপ্রুফ কিনা তা দেখে নিতে হবে। নইলে সাধের সাজ নষ্ট হতে বেশি সময় লাগবে না। এই আবহাওয়ায় যেকোনো সাজ শুরুর আগে প্রাইমার লাগিয়ে নিতে হবে। এতে মেকআপ দীর্ঘস্থায়ী হবে। আর মেঘলা আবহাওয়া দেখে সানস্ক্রিন এড়িয়ে গেলে চলবে না। দিনের বেলা ঘর ছাড়ার আগে অবশ্যই সানস্ক্রিন লাগিয়ে নিন।

নিজেকে সুন্দর করে উপস্থাপন করতে মেকআপের আগে অবশ্যই ত্বকের যত্নের দিকে খেয়াল রাখতে হবে। বর্ষায় সংক্রমনের ঝুঁকি বেড়ে যায় তাই পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার দিকেও খেয়াল রাখা জরুরি।

ত্বক পরিষ্কার করতে ক্ষারবিহীন ফেসওয়াশ ব্যবহার করা উচিত। এর পর ত্বকোপযোগী ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। এতে ত্বকের আর্দ্রতা বজায় থাকবে। এই মৌসুমে ওয়াটার বেইজ ময়েশ্চারাইজার বেছে নেওয়া উচিত।

ত্বকের মৃত কোষ দূর করতে এক্সফলিয়েট করা প্রয়োজন। এক্ষেত্রে মিহি দানার এক্সফলিয়েটর বেছে নিন। হালকা হাতে ত্বকে ম্যাসাজ করে পরিষ্কার করুন নতুবা ত্বক ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

এই মৌসুমে ঠোঁটফাটা বা ঠোঁটের চামড়া ওঠা খুবই সাধারণ সমস্যা। তাই ঠোঁটে লিপ বাম ব্যবহার করা উচিত। এতে ঠোঁটের নমনীয়তা বজায় থাকবে এবং ঠোঁট ফাটার সম্ভাবনাও কমবে।

বৃষ্টির দিনে ঘরে ফিরে ভালোভাবে পা ধুয়ে লোশন লাগিয়ে নিন। কারণ মুখের ত্বকের পাশাপাশি পুরো শরীরের ত্বকেরও যত্ন প্রয়োজন।

ঈদের সময় নিজেকে সুন্দরভাবে সাজাতে আগে থেকেই নিজের প্রতি যত্নশীল হতে হবে। তাহলেই ঈদে নিজেকে সুন্দরভাবে উপস্থাপন করা সম্ভব।

- অদ্বিতী