বৃহস্পতিবার,২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮
হোম / খাবার-দাবার / বিশ্বকাপ জমে উঠুক মজাদার নাশতায়
০৭/০৮/২০১৮

বিশ্বকাপ জমে উঠুক মজাদার নাশতায়

-

সারাবিশ্ব এখন কাঁপছে ফুটবল জ্বরে। আমাদের দেশেও এর ব্যতিক্রম নেই। আর এবারের খেলার সময়গুলো অফিস আওয়ারে না পড়ায় পরিবার ও বন্ধু-বান্ধবের সাথে আয়োজন করে খেলা দেখছেন অনেকেই। এ যেন ঘরে ঘরে নিত্য মজাদার পার্টি! আর এই পার্টিতে তো থাকতেই হবে মজাদার খাবারদাবার বিশেষত নাস্তা। ওয়ার্ল্ড কাপ খেলা দেখার সময় উপযোগী কিছু খাবারের রেসিপি আজকে পাঠকদের জন্য দেয়া হলো।

রেসিপি ও ছবিঃ শায়লা নাঈম শিলু

১। ফিশ স্টিক

উপকরণ
রুই মাছ, লম্বা আঙুলের মতো করে কাটা- ১২ পিস
ময়দা ও কর্নফ্লাওয়ার মিক্সড- আধা কাপ
লেবুর রস- ১ টেবিল চামচ
গোলমরিচ গুঁড়া- সামান্য
লবণ- সামান্য
টমেটো সস ও সয়াসস- ১ টেবিল চামচ
ডিম- একটি (ভালো করে ফেটে নেওয়া)
ব্রেড ক্রাম্ব- আধাকাপ

প্রণালি
প্রথমে রুই মাছের টুকরোগুলোকে খুব ভালো করে ধুয়ে নিন। এবার এতে লেবুর রস, টমেটো ও সয়াসস, লবণ গোলমরিচ দিয়ে মেখে রাখুন দশ মিনিট।
এবার মাছের পিসগুলোতে ডিম দিন। ময়দা ও কর্নফ্লাওয়ার দিয়ে খুব ভালো করে মেখে নিন। এবার এবার ব্রেড ক্রাম্বে গড়িয়ে নিন।
তেল গরম করে কম আঁচে ফিস স্টিক ভেজে নিন।

২। গার্লিক টোম্যাটো ব্রুশেতা

উপকরণ
অলিভ অয়েল- ১/৪ কাপ
বেসিল কুচি- ৩ টেবল চামচ
রসুন থেঁতো- ৩-৪ কোয়া
লবণ- ১/২ চা চামচ
গোলমরিচ গুঁড়ো- ১/৪ চা চামচ
টোম্যাটো- ৪টে, মাঝারি সাইজের, কুচনো
পারমেজান চিজ- ২ টেবিল চামচ (গ্রেট করা)
ফ্রেঞ্চ ব্রেড- ১ পাউন্ড (স্লাইস করা)

প্রণালি
একটা বড় বাটিকে তেল, বেসিল, লবন ও গোলমরিচ গুঁড়া মেশান। এর সঙ্গে টমেটো আলতো করে মিশিয়ে নিয়ে উপরে চিজ ছড়িয়ে রেফ্রিজরেটরে অন্তত ১ ঘণ্টা রাখুন।
পরিবেশনের আগে ঘরের তাপমাত্রায় নিয়ে আসুন।
এবার ব্রেড স্লাইস কেটে হালকা বাদামি করে সেঁকে নিন।
এর উপর টমেটোর মিশ্রণ দিয়ে পরিবেশন করুন।

৩। বীফ লাজানিয়া

উপকরণ
চওড়া পাস্তা শিট- ১ প্যাকেট
বীফ কিমা- ১ কেজি
সয়াসস- ১ চা চামচ
টমেটো সস- ৩ চা চামচ
সুইট চিলি সস- ১ চা চামচ
আদাবাটা- ১ চা চামচ
রসুনবাটা- ১ চা চামচ
এলাচ- ৩টা
দারুচিনি- ২টা
তেজপাতা- ১টা বড়
ভাজা জিরা গুঁড়া- ১ চা চামচ থেকে ২ চা চামচ
পেঁয়াজ কুচি- আধাকাপ
কাঁচামরিচ কুচি- ঝাল অনুযায়ী
গোলমরিচগুঁড়া- ২ চিমটি
রেড চিলি ফ্লেক্স- পরিমাণমতো
লবণ- স্বাদ অনুযায়ী
মোজ্জারেলা চীজ (স্লাইস করা)- ১ প্যাকেট
তেল- পরিমানণমতো

প্রণালি
প্রথমে কিমাটা ভালো করে ধুয়ে নিন। প্যানে তেলের মধ্যে পেঁয়াজকুচি, কাঁচামরিচ কুচি, লবণসহ সব মশলা আদাবাটা, রসুনবাটা, এলাচ, দারুচিনি, তেজপাতা, জিরা গুঁড়া দিয়ে ভালো করে না কষিয়ে কিমা দিয়ে দিন।
কিছুক্ষণ পর পরিমাণমতো পানি দিয়ে সিদ্ধ করে নিতে হবে। উপরের সব সস, গোলমরিচের গুঁড়া, রেড চিলি ফ্লেক্স দিয়ে কিমাটা গ্রেভি করে নিন। কিমাটা পাস্তায় দেয়ার আগে তেজপাতা, এলাচ, দারুচিনি ফেলে নিতে হবে।
এবার পাস্তা শীট ফুটন্ত পানিতে লবণ-তেল দিয়ে সিদ্ধ করতে হবে। চামচ দিয়ে তুলে হাত দিয়ে দেখুন সিদ্ধ হয়েছে কি না। পাস্তা যেন ভেঙে না যায় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।
এবার একটা ওভেন প্রুফ প্যানে বাটার মেখে প্রথমে পাস্তা শীট বিছিয়ে এর উপর পুরোটা ঢেকে ১ ইঞ্চি কিমার লেয়ার দিতে ববে। এর উপর স্লাইসড চিজ দিয়ে আবার এর উপর কিমা তার উপর আবার একটা পাস্তা শীট আবার উপরে কিমা দিয়ে লেয়ার করতে হবে।
সবার উপরে মোজ্জারেলা চীজ গ্রেট করে বিছিয়ে নিয়ে প্রি-হিট ওভেনে ১৮০ ডিগ্রিতে ৬-৮ মিনিট বেক করতে হবে। যখন উপরের চীজটা গলে গলে পড়বে, তখন ওভেন থেকে বের করুন।

৪। মেক্সিকান টাকোস

উপকরণ
ময়দা- ১ কাপ
লবণ- পরিমাণমতো
মুরগির/গরুর কিমা- ১ কাপ
টমেটো- ১টা, বড়
শশা- ১ টা
কাঁচামরিচ- প্রয়োজনমতো
পেঁয়াজ- বড় ১টি
ধনেপাতা- কুচি করে কাটা
লেবুর রস- ১ চা চামচ
সাদা গোলমরিচ- প্রয়োজনমতো (গুঁড়া করা)
তেল- ভাজার জন্য
পানি- ময়দার ময়ান করতে যা লাগে
মেয়নিজ- ১/২ কাপ
টমেটো কেচাপ- ১ কাপ

প্রণালি
রুটি বানানোর জন্য একটি বাটিতে পরিমাণমতো পানি, লবণ এবং ময়দা মিশিয়ে কিছুক্ষণ রেখে দিন। এর পর ময়ান দিয়ে ছোট ছোট রুটি তৈরি করে নিন। রুটিগুলোকে একটি কাঁটাচামচ দিয়ে পুরো রুটিতে ফুটো করে নিন (ভাঁজার সময় রুটি যাতে ফুলে না উঠে)। এরপর তেল গরম করে অর্ধচন্দ্রাকৃতি করে রুটিগুলো ভেজে নিন। লক্ষ্য রাখবেন যাতে রুটির মাঝে ফাঁকা থাকে। (ভাজ হয়ে যেন লেগে না থাকে)
সস বানানোর জন্য - একটি বাটিতে মেয়নিজ এবং টমেটো একসাথে মিশিয়ে নিন।
গারনিশিং-এর জন্য- শসা, টমেটো, পেঁয়াজ, কাঁচামরিচ, ধনেপাতা কুচি করে নিন। এতে লেবুর রস এবং গোল মরিচ দিয়ে ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।
ড্রেসিং-এর জন্য- ভাজা রুটির ভিতরে প্রথমে কিমা দিয়ে ভর্তি করে নিন ২/৩ ভাগ। এরপর সস এবং সালাদ দিয়ে বাকি অংশটুকু ভর্তি করুন। এরপর উপরে সস দিয়ে পরিবেশন করুন। এইতো হয়ে গেল মজাদার মেক্সিকান টাকোস।

৫। চুরমুর

উপকরণ
ফুচকা - ১০-১২টা
আলু- ১টা (মাঝারি সাইজের) ডুমো করে কাটা
ভেজানো ছোলা- ১/৪ কাপ
ভাজা জিরে গুঁড়ো- ১ চা চামচ
লাল মরিচগুঁড়ো- ১/২ চা চামচ
বিট নুন- ১/২ চা চামচ
ধনেপাতা কুচি- একমুঠো
কাঁচামরিচ কুচি- ২-৩টি
তেঁতুলের পানি- ১/৮ কাপ
লেবুর রস- ১ চা চামচ

প্রণালি
আলুর সঙ্গে সব গুঁড়ো মশলা মিশিয়ে ম্যাশ করে নিন। এর মধ্যে ফুচকা ভেঙে দিন।
ছোলা, কাঁচামরিচ কুচি, ধনেপাতাকুচি, লেবুর রস, তেঁতুলের পানি দিয়ে ভালো করে মেখে সঙ্গে সঙ্গে পরিবেশন করুন।

৬। চিকেন চিজ পিজ্জা

উপকরণ
চিকেন ব্রেস্ট- ৩টি
গোলমরিচ গুঁড়ো- ১/২ চা চামচ
নুন- ১/৮ চা চামচ
পিজ্জা ব্রেড - পছন্দমত
চিজ- ১ আউন্স
ফ্যাট ফ্রি দুধ- ১ টেবিল চামচ
শ্রেডেড মোজ্জারেলা- ২ আউন্স
গ্রেটেড পারমেজান চিজ- ২ টেবিল চামচ
বেসিল- ১ টেবিল চামচ
অরিগ্যানো- ১ টেবিল চামচ

প্রণালি
ওভেন ৪৫০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডে প্রিহিট করুন। চিকেনের দুই পিঠে লবণ ও গোলমরিচ গুঁড়ো ছড়িয়ে নিন। মাঝারি আঁচে গ্রিল প্যান হিট করুন। প্যানে চিকেন দিয়ে ৩ মিনিট নেড়ে নিন। ১০ মিনিট রেখে দিয়ে সরু সরু স্লাইস করে নিন।
পিজ্জা ব্রেডের ওপর কুকিং স্প্রে দিন। চিজ ও দুধ একসঙ্গে মিশিয়ে পিজ্জা ব্রেডের ওপর ছড়িয়ে দিন। ওপরে চিকেন, মোজ্জারেলা, পারমেজান ও নুন দিয়ে প্রি-হিট করা ওভেনে ১২ মিনিট বেক করুন। ওপরে বেসিল ও অরিগ্যানো ছড়িয়ে দিন।

৭। ফিঙ্গার স্যান্ডউইচ

উপকরণ
পাউরুটি- প্রয়োজনমতো
শসাকুচি- ১ কাপ
গাজরকুচি, বড় আকারের- ১ কাপ
মুরগির বুকের মাংস- ২ টুকরো
মেয়োনেজ- ৩ টেবিল চামচ
পেঁয়াজ- ১ টি, মোটা করে কুচি করা
আদা কুচি- আধা চা-চামচ
লবণ- স্বাদমতো
পানি- ১ কাপ

প্রণালি
মাংস পাতলা ও লম্বা কুচি করে কেটে নিয়ে লবণ, আদা কুচি দিয়ে সিদ্ধ করে নিন।
এরপর মাংস কুচিতে মেয়নেজ, লবণ ও কাঁচামরিচ (বিচি ফেলে দেওয়া) দিয়ে মেখে রাখুন। কুচি করা গাজর ও শসায় ৩/৪ টেবিল চামচ মেয়নেজ দিয়ে ভালো করে মেখে রাখুন।
এরপর পাউরুটিতে প্রথমে মাংস স্তরের মতো করে দিন। এবং এর ওপর গাজর ও শসার মিশ্রণটি দিয়ে দিন। ওপরে আরেকটি পাউরুটি দিয়ে স্যান্ডউইচের মতো বানিয়ে তিন বা চারকোণা করে ছোট ছোট করে কাটুন।
ব্যস তৈরি হয়ে গেল ফিঙ্গার স্যান্ডউইচ।

৮। ডোনাট

উপকরণ
ময়দা- ২ কাপ
চিনি- ১ কাপ
ইস্ট- ১ চা চামচ
গুঁড়া দুধ- ১ চা চামচ
পানি- আধাকাপ
বাটার- ১ চা চামচ

প্রণালি
ময়দার সঙ্গে সব উপকরণ ভালোভাবে মেখে আধা ঘণ্টা ঢেকে রাখতে হবে। রুটি বেলে ডোনাট কাটার দিয়ে ডোনাট কেটে নিতে হবে। আবার আধা ঘণ্টা পলিথিন দিয়ে ঢেকে রেখে ভেজে নিতে হবে।

চকলেট ডোনাট
গলানো চকলেটে (১ কাপ) ডোনাট ডুবিয়ে তুলে নিতে হবে

সুগার ডোনাট
১ কাপ চিনি চুলায় গরম করে সঙ্গে ১ টেবিল চামচ লেবুর রস জ্বাল দিয়ে ডোনাটের ওপর ঢেলে দিতে হবে।

৯। কাপকেক

উপকরণ
ময়দা - ১/২ কাপ
বেকিং পাউডার- ১/২ চা চামচ
মাখন - ১/২ কাপ, রুম টে¤পারেচারে
চিনি- ১ কাপ
ডিম- ২ টা
ভ্যানিলা এসেন্স- ১ চা চামচ
এলাচি গুড়া- ১ চা চামচ
দুধ- ১/২ কাপ

প্রণালী
প্রথমে ১৬০ ডিগ্রী-তে ওভেন প্রি হিট করে নিন।
এবার মাখনের সাথে চিনি ভালো ভাবে মিক্স করে নিন। এরপর ডিম, ময়দা, দুধ, এবং ভ্যানিলা এসেন্স, এলাচি গুড়া- সব ভালো ভাবে মিক্স করুন।
এবার কাপকেক মোল্ডে মিশ্রন ঢেলে দিয়ে ২০ মিনিট বেক করুন।
ইচ্ছা হলে পছন্দমত ফ্রস্টিং দিয়ে সাজিয়ে পরিবেশন করুন।