শনিবার,২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮
হোম / বিবিধ / ভালোবাসার উপহার
০২/১২/২০১৮

ভালোবাসার উপহার

-

ভালোবাসা দিবস আসতে আর মাত্র ক’দিন বাকি। অনেকেই হয়ত উদগ্রীব হয়ে আছেন এই দিনটিকে নিজের মতো করে পালন করার জন্য। অনেকেই হয়ত ভালোবাসার মানুষটিকে উপহার দেওয়ার কথা ভাবছেন। কিন্তু বুঝতে পারছেন না কী উপহার দেয়া যেতে পারে। আবার চমকে দেওয়ার আশায় তাকে জিজ্ঞাসাও করতে পারছেন না কী উপহার পেলে খুশি হবেন তিনি। ভালোবাসা দিবসে সাধারণ কিন্তু সুন্দর কিছু জিনিস দিয়েই খুশি করা যেতে পারে আপনার প্রিয় মানুষটিকে।

কার্ড
উপহারগুলোর মধ্যে সব থেকে বেশি প্রাধান্য পায় কার্ড। সবাই রোমান্টিক সব কার্ডের খোঁজ করেন প্রিয়জনকে উপহার দেওয়ার জন্য। এই দিনের জন্য বিভিন্ন দোকানগুলোতেও নানা ধরনের কার্ডের পসরা সাজিয়ে রাখা হয়। প্রিয়জনকে যা-ই উপহার দিন, তার সঙ্গে যদি কিছু ভালো লাগার মতো কথা লিখে দেওয়া যায়, তবে তো কথাই নেই। অনেকের কাছে ভালোবাসা দিবসে মনের মধ্যে জমে থাকা না-বলা কথা প্রিয়জনকে প্রকাশ করার একটি সুযোগ করে দেয়, তাই লিখে জানানোর জন্য বেছে নিতে পারেন একটি কার্ড। লাল, নীল, সাদা, হলুদ যে-কোনো রঙের কার্ড নিতে পারেন। তবে ভালোবাসা দিবসের উপহার হিসেবে লাল রং ও লাল শেডের রঙকে নির্বাচনের শীর্ষে রাখুন।

লাল গোলাপ
যুগ যুগ ধরেই ভালোবাসা প্রকাশ করার অন্যতম একটি মাধ্যম হলো লাল গোলাপ। লাল গোলাপ ছাড়া যেন সব উপহারই মলিন রয়ে যায়। আর তাই ভালোবাসা দিবসে বা পহেলা ফাল্গুনে ফুলের দোকানগুলোতে জমে ওঠে ফুলের রমরমা ব্যবসা। এই ভালোবাসা দিবসে প্রিয়মানুষটিকে একটি লাল গোলাপ কিন্তু অবশ্যই দেওয়া চাই। আর ফুল দিয়ে সারপ্রাইজ করার ব্যবস্থা আছে এখন অনলাইনেও। অনলাইন সাইটে অর্ডার দিলেই প্রিয়জনের কাছে চলে যাবে আপনার পছন্দের ফুল।

বই
এখন চলছে বইমেলা। বলা হয়ে থাকে বই মানুষের সবচাইতে ভালো বন্ধু এবং কাউকে দেয়ার জন্য সবচেয়ে ভালো উপহার। এবারের ভালোবাসা দিবসে বা পহেলা ফাল্গুনে আপনার ভালোবাসার মানুষটিকে উপহার দিতে পারেন তার পছন্দের কোনো বই। বইয়ের প্রথম পাতায় ভালোবাসা প্রকাশ করে কয়েকটি কথাও লিখে দিতে পারেন তাকে।

চকলেট বা কেক
চকলেট খেতে পছন্দ করে না এমন মানুষ খুব কমই আছে। তবে আপনার কাছের মানুষটি যদি চকলেট পছন্দ না করে তবে নিরাশ হওয়ার কোনো কারন নেই। আপনার সঙ্গীর পছন্দের কোনো ফ্লেভারের কেক কেটে এ দিবসটি পালন করতে পারেন। শুধু উপহার হিসেবে নয়, চকলেট ও কেকের গুণে সম্পর্ক হয়ে উঠতে পারে আরও মধুর।

গহনা
যে-কোনো গহনা মেয়েদের পছন্দ। তাই নিজের পছন্দ আর সাধ্য অনুযায়ী ভালোবাসার মানুষটিকে গহনা উপহার দিতে পারেন। আর ভ্যালেন্টাইন'স ডে উপলক্ষে ছাড়ও থাকে নানা জুয়েলারিতে।

ঘড়ি
হাতঘড়ি ছেলেমেয়ে উভয়ের অনেক পছন্দ। প্রেমিকার পছন্দের ব্র্যান্ডের হাতঘড়ি উপহার হিসেবে মন্দ না। ব্যাগ উপহার পেলে মেয়েরা অনেক খুশি হয়। পার্টি ব্যাগ অথবা যে কোনো ব্যাগ ভালোবাসা দিবসের উপহার হিসেবে বেশ ভালো।

গ্যাজেট
গ্যাজেট টাইপের কিছু উপহার দিতে পারেন সঙ্গীকে। এ ক্ষেত্রে বাজারে আসা নতুন কোনো স্মার্টফোন বা ট্যাবলেট দিতে পারে। গান শোনার জন্য ভালো কোনো হেডফোনও উপহার দিতে পারেন।

অন্যান্য উপহার
বাজারে বা অনলাইনে অনেক দোকানেই এখন মগে প্রিয়জনের ছবি প্রিন্ট করে গিফট দেয়া যায়। মগের মধ্যে নিজেদের সুন্দর একটা ছবি ছাপিয়ে প্রিয়জনকে উপহার দিতে পারেন। নীলক্ষেতে কিংবা কাটাবনের অনেকগুলো দোকানই মগে ছবি ছাপানোর কাজ করে থাকে। কাস্টোমাইজড প্রিন্টেড মগ আপনার বা আপনার প্রিয় মানুষের ছবি দিয়ে প্রিন্ট করতে পারেন।

এছাড়া ছেলেদের জন্য সানগ্লাস, সুগন্ধি, টিশার্ট বা পাঞ্জাবি হতে পারে মানানসই উপহার। একটু সময় নিয়ে নিজের হাতেই বানিয়ে নিতে পারেন কার্ড, ফটোফ্রেম কিংবা অন্য কোনো সুন্দর উপহার। নিজের সৃজনশীলতা এবং রুচির সমন্বয়ে তৈরি আপনার উপহারটি আপনার ভালোবাসার মানুষটি পছন্দ করবেই।

- রিয়াদুন্নবী শেখ