বুধবার,২১ নভেম্বর ২০১৮
হোম / বিনোদন / বছরের যত আলোচিত সিনেমা
০১/০২/২০১৮

বছরের যত আলোচিত সিনেমা

-

ক্রমশ কমে আসা হলের সংখ্যা এবং ঢালিউড পাড়ায় নিত্যনতুন বিতর্কের মাঝে বছরজুড়ে বেশ কয়েকবারই স্বস্তির পরশ এনেছে হালদা, ঢাকা অ্যাটাক-এর মতো চলচ্চিত্রগুলো। সবচেয়ে আশার কথা হলো এবার গতানুগতিক বাণিজ্যিক সিনেমার গন্ডি পেরিয়ে মৌলিক গল্পনির্ভর সিনেমাগুলো দর্শকদের মধ্যে ভালো সাড়া ফেলেছে। যৌথপ্রযোজনার সিনেমা নিয়ে বিতর্ক কিংবা শোবিজ তারকাদের পারিবারিক জীবন ছাড়িয়ে তাই ২০১৭-এর ঢালিউড কিছুটা হলেও স্বস্তির আভাস দিচ্ছে।

হালদা
বছরের আলোচিত এবং দর্শকনন্দিত সিনেমার কথা বলতে গেলে প্রথমেই চলে আসে হালদার কথা। ব্যতিক্রমী এবং মানসম্পন্ন সিনেমা বানানোর ধারা ধরে রেখে বছরের শেষ দিকে নদীপাড়ের মানুষদের নিয়ে অসাধারণ এক চলচ্চিত্র নিয়ে আসেন পরিচালক তৌকির আহমেদ। গত ১লা ডিসেম্বর মুক্তি পাওয়া ছবিটি সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে সমাদৃত হয়েছে। হালদা পাড়ের জেলে মনু মিয়া (ফজলুল রহমান বাবু), বদি (মোশাররফ করিম), মনু মিয়ার কন্যা হাসুর (নুসরাত ইমরোজ তিশা) জীবন সংগ্রামের অনন্য এক উপাখ্যানের মাধ্যমে পরিচালক একদিকে যেমন নদীপাড়ের মানুষদের জীবনের অসহায়ত্ব ফুটিয়ে তুলেছেন একই সাথে হালদার দূষণ প্রতিরোধে প্রতিবাদী বার্তা প্রদানেও সক্ষম হয়েছেন। মৌলিক গল্পের পাশাপাশি শ্রুতিমধুর গান এবং ক্যামেরার অসাধারণ কারসাজিতে জমজমাট ১৩০ মিনিট উপভোগ করেছেন দর্শকরা।

ঢাকা অ্যাটাক
বাংলা চলচ্চিত্রে ঢাকা অ্যাটাকের মতো কপ থ্রিলার মুভি-এর আগে দেখা যায়নি বলা চলে। একদল চৌকস পুলিশ বাহিনীর কিছু হত্যার ঘটনা তদন্ত এবং বোম্বিং-এর পেছনে যুক্ত সন্ত্রাসী দলকে ধরার প্রক্রিয়াকে কেন্দ্র করে ছবিটি বানিয়েছেন দীপংকর দীপন। কেন্দ্রীয় চরিত্রে আরেফিন শুভ এবং খলনায়কের চরিত্রে তাসকিন সকলের প্রশংসা কুড়িয়েছেন। এর সঙ্গে আইন-শৃংখলা বাহিনীর বেশ কিছু সদস্যও এখানে অভিনয় করেছেন এবং বেশ ভালোই করেছেন বলা চলে। ছবির সিনেমাটোগ্রাফি এবং অ্যাকশন সিকোয়েন্সের কথা আলাদা করে বলতেই হয়। ৬ অক্টোবর মুক্তি পাওয়া ছবিটি এ বছরের অন্যতম ব্যবসাসফল ছবি এবং সব মিলিয়ে দেশিয় থ্রিলার মুভির জগতে নতুন সংযোজন বলা চলে।

খাঁচা
হাসান আজিজুল হকের ‘খাঁচা’ গল্প অবলম্বনে নির্মিতব্য এই সিনেমায় অভিনেতা আজাদ আবুল কালাম এবং জয়া আহসানের সাবলীল অভিনয় দর্শকমনে দাগ কেটেছে। বোদ্ধামহলে প্রশংসিত এই ছবিটির প্রাণকেন্দ্রে ছিলেন জয়া আহসান। সরোজিনী চরিত্রে জয়া সংসারের হাজারো ঝঞ্ঝাট হাসিমুখে মেনে নেয়া একজন শক্তিশালী নারী ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। দেশভাগের গল্প নিয়ে হলেও সিনেমাটিতে পরিচালক আকরাম খান এককভাগে ভাগ্য বিড়ম্বিত অসহায় মানুষের গল্পও টেনে এনেছেন ঠিকই। এর সঙ্গে সাম্প্রতিক বৈশ্বিক প্রেক্ষাপটও এসেছে সমানভাবে। গত ২২ সেপ্টেম্বর মুক্তি পাওয়া ছবিটিতে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এবং দ্বিজেন্দ্রলাল রায়ের গান ব্যবহার করা হয়েছে।

ডুব
উপরে উল্লিখিত মুভিগুলোর তুলনায় ব্যবসাসফল না হলেও বছরের আলোচিত মুভির তালিকায় ডুব না রাখলেই নয়। জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের বাস্তব জীবনের চিত্রায়ন কিনা তা নিয়ে বছরজুড়েই বিতর্কের মুখে ছিলেন পরিচালক মোস্তফা সরওয়ার ফারুকী। গেল ২৭ অক্টোবর মুক্তি পাওয়া ছবিটিকে ঘিরে দর্শকদের মধ্যেও ছিল মিশ্র প্রতিক্রিয়া। বলিউডের শক্তিমান অভিনেতা ইরফান খানের অন্তর্ভুক্তিও তাই দিন শেষে মুখ্য বিষয় হয়ে যায়নি। ছবিটি আদৌ হুমায়ূন আহমদের জীবনী নিয়ে কিনা তা নির্ণয়ের ভার দর্শকের কোর্টে ফেলে বলা যায়- ব্যবসাসফল কিংবা দর্শকনন্দিত হোক বা না হোক, চায়ের কাপে ঠিকই ঝড় তুলেছে ডুব।

নবাব
ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে যতই বিতর্ক হোক না কেন, বছর শেষে ঢালিউডে বাণিজ্যিক ছবির নবাব-এর স্থানটা ঠিকই আগলে রেখেছেন শাকিব খান। যৌথ প্রযোজনার এই রোমান্টিক থ্রিলার ছবি নবাব এপার-ওপার দুই বাংলাতেই দর্শকপ্রিয় হয়েছে। জয়দেব মুখার্জী পরিচালিত ছবিটিতে শাকিব খানের লুক, ফাইট সিনস এবং সামগ্রিক অভিনয় প্রশংসার দাবিদার। এর সঙ্গে সিনেমার চটুল গানগুলোও বছরজুড়ে পার্টি-উৎসবে বেজেছে সমান তালে।

- নাইব