বৃহস্পতিবার,২৩ নভেম্বর ২০১৭
হোম / রূপসৌন্দর্য / বাড়িতেই করুন ফ্রেঞ্চ ম্যানিকিওর
০৩/২৩/২০১৭

বাড়িতেই করুন ফ্রেঞ্চ ম্যানিকিওর

-

সুন্দরভাবে কাটা নখ এবং পছন্দসই রংয়ের নেইলপলিশ হাতের সৌন্দর্য বাড়িয়ে তোলে। অনেকদিন ধরেই ফ্যাশন সচেতনদের পছন্দের তালিকায় রয়েছে ফ্রেঞ্চ ম্যানিকিওর। এই পদ্ধতিতে নখের বাড়তি অংশটুকুতে হালকা গোলাপি, সাদা বা অফহোয়াইট রংয়ের নেইলপলিশ লাগানো হয়।

ম্যানিকিওর এমন একটি প্রক্রিয়া, যা হাত ও নখ পরিষ্কার করে সুন্দর করে তুলতে সাহায্য করে। এই পদ্ধতিতে নেইলপলিশ দিতে হলে প্রথমেই নখে লাগানো আগের নেইলপলিশ তুলে ফেলতে হবে। খানিকটা কিউটিকল তেল নিয়ে নখে ম্যাসাজ করতে হবে। এরপর নখ ফাইল করে পছন্দসই শেপ করে নিতে হবে।

ফাইল করার ক্ষেত্রে সবসময় একই দিকে ঘষতে হবে। কখনওই সামনে পিছনে করে ফাইল করা যাবে না। এতে নখ ক্ষতিগস্ত হয় এবং ভঙ্গুর হয়ে পড়ে।

কিউটিকল অয়েল নখে ও চারপাশে মিশে গেলে ১৫ মিনিট কুসুম গরম পানিতে হাত ডুবিয়ে রাখতে হবে। এরপর হাত মুছে নখে ও হাতে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। ১৫ মিনিট অপেক্ষা করতে হবে, যেন তা হাতে মিশে যায়।

এ-পর্যায়ে কিউটিকল স্টিক ঘষে কিউটিকল পরিষ্কার করে নিতে হবে। যেগুলো অতিরিক্ত থাকবে, সেগুলো ঘষে ভিতরে ঢুকিয়ে দিন। হাত ভালোভাবে মুছে নেইলপলিশ লাগানোর প্রস্তুতি নিতে হবে।

নেইল পলিশ লাগানো:

- গোলাপি, সাদা, পিচ, অফ হোয়াইট এ-ধরনের রং বেছে নিতে হবে।

- নখের বাড়তি অংশটুকুতে ওই রংগুলোর যে কোনোটি লাগিয়ে নিতে হবে। সুবিধার জন্য স্কচটেপ লাগিয়ে গাইডলাইন হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে।

- দ্বিতীয় কোট নেইলপলিশ লাগানোর আগে প্রথম কোট নেইলপলিশ শুকিয়ে যাওয়ার জন্য অপেক্ষা করতে হবে।

- নেইলপলিশ শুকিয়ে যাওয়ার পর টপ কোট লাগিয়ে নিতে হবে। এতে নখ সুন্দর লাগবে এবং নেইল পলিশ দীর্ঘস্থায়ী হবে।

নখ সাজাতে নেইল পলিশ বেশ জরুরি। তবে নিয়মমতো নেইল পলিশ উঠিয়ে ফেলাও জরুরি। দীর্ঘদিন টানা নেইল পলিশ নখে রাখা ঠিক না। তাছাড়া রিমুভার দিয়ে নেইল পলিশ ওঠানোর পর ভালোভাবে হাত ধুয়ে ময়েশ্চারাইজার লাগাতে হবে। নতুবা নখ শুকনো হয়ে যাবে।

নখ শক্ত ও মজবুত রাখার জন্য নিয়মিত যত্ন করার পাশাপাশি পুষ্টিকর খাবার খাওয়া উচিত। রাতে ঘুমানোর আগে নখে পেট্রোলিয়াম জেলি এবং অলিভ অয়েল মালিশ করে নিলে নখ শক্ত হয়। যাদের নখ বেশি নরম, তারা রাতে ঘুমানোর আগে পুরু করে পেট্রোলিয়াম জেলি ম্যাসাজ করে মোজা পরে ঘুমাতে পারেন। এতে নখ শক্ত হবে।

অনেকে গোসলের পর নখ কাটতে পছন্দ করেন, কারণ এই সময় নখ নরম থাকে। খেয়াল রাখবেন, নতুবা নখে চিড় ধরতে পারে।

অবশ্যই ভালোমানের এবং ভালো ব্র্যান্ডের নেইল পলিশ বেছে নেওয়া উচিত। কারণ সস্তা নেইল পলিশে সিসা থাকে, যা নখের জন্য ক্ষতিকর।

নখ কখনও অতিরিক্ত বড় করা ঠিক নয়, এতে নখ ভেঙে যাওয়ার আশঙ্কা বেড়ে যায়। তাছাড়া মাঝারি আকারের নখে নেইল পলিশ লাগাতেও সুবিধা হয়। নখের আকার-আকৃতি যেমনই হোক, খেয়াল রাখতে হবে তা যেন আপনার ব্যক্তিত্বের সঙ্গে মানিয়ে যায়।

- আফরিন